default-image

প্রশ্ন: আবহাওয়া, জলবায়ু ও মাটি কীভাবে ফসলের চাষকে প্রভাবিত করে লেখো।

উত্তর: আবহাওয়া, জলবায়ু ও মাটি নানাভাবে ফসলের চাষকে প্রভাবিত করে। নিচে তা আলোচনা করা হলো:

আবহাওয়া ও জলবায়ু: বাংলাদেশের প্রায় সব অঞ্চলের জলবায়ু ও অগভীর জলাভূমি ধান চাষের উপযোগী। শীতকালে গমের চাষ করা হয়। আমাদের জলবায়ু পাট চাষের জন্য বিশেষভাবে উপযোগী। এভাবেই আবহাওয়া ও জলবায়ু আমাদের দেশের বিভিন্ন ফসল উত্পাদনে বিশেষ ভূমিকা রাখে।

মাটি: আমাদের দেশের উর্বর দো-আঁশ ও বেলে মাটি আলু চাষের জন্য বিশেষ উপযোগী। একইভাবে তৈলবীজ, মসলা, ধান, গম, ডাল, পাট, চা, তামাক ইত্যাদি দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে মাটির ভিন্নতার কারণে ভালো জন্মে।

অধ্যায় ৫

প্রশ্ন: অধিক জনসংখ্যা শিক্ষার ওপর কী প্রভাব ফেলছে?

উত্তর: শিক্ষার ওপর অধিক জনসংখ্যার ২টি প্রভাব হলো—

১. দরিদ্রতার কারণে অনেক পিতা-মাতা তাদের সন্তানদের বিদ্যালয়ে পাঠাতে পারে না।

২. বিদ্যালয়ে ভর্তি হলেও অনেক শিশু পরিবারকে কাজে সাহায্য করতে গিয়ে লেখাপড়া শেষ না করে ঝরে পড়ে।

প্রশ্ন: মানবসম্পদ উন্নয়নের তিনটি উপায় লেখো।

উত্তর: মানবসম্পদ উন্নয়নের তিনটি উপায় হলো:

১. শ্রমশক্তি রপ্তানি

২. মৌলিক শিকার উন্নয়ন

৩. বিশেষায়িত প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষতা বৃদ্ধি।

প্রশ্ন: দেশে শিক্ষার হার বাড়ানোর জন্য দুটি করণীয় লেখো।

উত্তর: দেশের শিক্ষার হার বাড়ানোর ক্ষেত্রে করণীয়:

১. শতভাগ সাক্ষরতার হার নিশ্চিত করতে হবে। অর্থাৎ সব শিশুকেই স্কুলে পাঠাতে হবে।

২. শিক্ষার মান বৃদ্ধির জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।

বিজ্ঞাপন

প্রশ্ন: দক্ষ জনশক্তি উন্নয়নের ক্ষেত্রে দুটি করণীয় লেখো।

উত্তর: দক্ষ জনশক্তি উন্নয়নের ক্ষেত্রে দুটি করণীয়:

১. কারিগরি শিক্ষার উন্নয়ন করা

২. বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষণ কর্মসূচির ব্যবস্থা করা।

প্রশ্ন: নতুন শিল্পের বিকাশের ক্ষেত্রে জনসম্পদকে কীভাবে কাজে লাগানো যায়?

উত্তর: নতুন শিল্পের বিকাশের ক্ষেত্রে আমাদের অতিরিক্ত জনসম্পদকে কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে বিভিন্ন কাজের প্রশিক্ষণ দেওয়া যায়। যাতে তারা নতুন কোনো শিল্প বিকাশে সহায়তা করতে পারে।

প্রশ্ন: জনসংখ্যা সমস্যার সমাধানগুলো কী?

উত্তর: জনসংখ্যা সমস্যার সমাধান করতে নিচের বিষয়গুলোর উন্নয়ন প্রয়োজন। যেমন খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান, পরিবেশ, স্বাস্থ্য, শিক্ষা, দক্ষতার উন্নয়ন।

প্রশ্ন: বাংলাদেশের জাতীয় অর্থনীতির কত ভাগ কৃষি থেকে আসে? অধিক খাদ্য উত্পাদনের ফলে দেশের জনগণ কীভাবে উপকৃত হতে পারে?

উত্তর: বাংলাদেশের মোট জাতীয় অর্থনীতির শতকরা প্রায় ২০ ভাগ আসে কৃষি থেকে। অধিক খাদ্য উত্পাদনের মাধ্যমে জনগণ বিভিন্নভাবে উপকৃত হতে পারে। যেমন—

১. বাংলাদেশে আর খাদ্য ঘাটতি থাকবে না এবং খাদ্য আমদানি করতে হবে না।

২. দেশ অর্থনৈতিকভাবে লাভবান হবে এবং উন্নয়নের দিকে ধাবিত হবে।

৩. খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ জাতি শিক্ষা ও কর্মক্ষেত্রে দক্ষ হয়ে উঠবে।

৪. খাদ্য আমদানিতে যে অর্থ ব্যয় হতো, সেটি নিজের দেশের বিভিন্ন শিল্পপ্রতিষ্ঠানে ব্যবহার করা সম্ভব হবে। শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে ওঠায় কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে এবং দারিদ্র্য দূর হবে।

শিক্ষা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন