default-image

২০১৯ সালের জাতীয় শিক্ষা পদকের জন্য শ্রেষ্ঠ প্রাথমিক বিদ্যালয় নির্বাচিত হয়েছে টাঙ্গাইল জেলার মির্জাপুরের বাইমহাটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। রোববার এই তালিকা চূড়ান্ত করেছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। একই সঙ্গে শ্রেষ্ঠ শিক্ষক ও শ্রেষ্ঠ জেলা প্রশাসকসহ বিভিন্ন শ্রেণিতে সেরা হওয়াদের নামও চূড়ান্ত করা হয়েছে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দুজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তা এই তালিকাটি চূড়ান্ত হওয়ার বিষয়টি প্রথম আলোকে নিশ্চিত করেন। তাঁরা জানান সুবিধাজনক সময়ে সংশ্লিষ্টদের পদক দেওয়া হবে।

বিজ্ঞাপন

এবার শ্রেষ্ঠ প্রধান শিক্ষক নির্বাচিত হয়েছেন রাজবাড়ী জেলার বালিয়াকান্দির স্বাবলম্বী ইসলামপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শহিদুল ইসলাম এবং সেরা প্রধান শিক্ষিকা নির্বাচিত হয়েছেন নওগাঁ সদরের কীর্তিপুর ২ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফাতেমা খাতুন। শ্রেষ্ঠ সহকারী নির্বাচিত হয়েছেন গাজীপুরের কাপাসিয়ার নলগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক এস এম শফিকুল আলম এবং সেরা সহকারী শিক্ষিকা নির্বাচিত হয়েছেন ঢাকার মোহাম্মদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা খায়রুন নাহার।

প্রাথমিক শিক্ষায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখায় সেরা জেলা প্রশাসক নির্বাচিত হয়েছেন টাঙ্গাইলের সাবেক জেলা প্রশাসক (বর্তমানে ঢাকার জেলা প্রশাসক) মো.শহীদুল ইসলাম ও শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হয়েছেন সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার ইয়াসমিন নাহার। আর শ্রেষ্ঠ সহকারী উপজেলা বা থানা শিক্ষা কর্মকর্তা হয়েছেন ঝিনাইদহের মহেশপুরের মো. আসাদুজ্জামান, শ্রেষ্ঠ উপজেলা বা থানা শিক্ষা কর্মকর্তা হয়েছেন গাজীপুরের কালিয়াকৈরের রমিতা ইসলাম এবং শ্রেষ্ঠ জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নির্বাচিত হয়েছেন মাগুরার জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা কুমারেশ চন্দ্র গাছি। এ ছাড়া শ্রেষ্ঠ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হয়েছেন পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলার মিরাজুল ইসলাম।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0