default-image

এ বছরের জুলাই ও আগস্টে জাপানের টোকিয়োতে অলিম্পিক গেম আয়োজনের কথা ছিল। করোনা মহামারির কারণে তা অনুষ্ঠিত হবে ২০২১ সালে। তবে যুক্তরাজ্য বলছে, স্থগিত ঘোষণার আগেই অলিম্পিকের আয়োজন ভন্ডুল করতে উঠেপড়ে লেগেছিল রুশ হ্যাকাররা।

দেশটির ফরেন অফিস থেকে জানানো হয়েছে, অলিম্পিক আয়োজনের সঙ্গে জড়িত প্রতিষ্ঠান ও কর্মকর্তাদের লক্ষ্য করে সাইবার হামলা চালিয়েছিল রাশিয়ার জিআরইউ মিলিটারি ইন্টেলিজেন্স। অলিম্পিক গেম স্থগিত ঘোষণার আগেই সে হামলায় চালায় তারা। তবে ঠিক কী ধরনের সাইবার হামলা চালানো হয়েছে, তা নিয়ে বিস্তারিত জানানো হয়নি বলে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি অনলাইনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

একই সময়ে ছয় রুশ জিআরইউ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনে মার্কিন বিচার বিভাগ। অভিযোগে ‘রাশিয়ার কৌশলগত সুবিধা’র উদ্দেশ্যে পরিচালিত সাইবার হামলার উল্লেখ ছিল। এ বিষয়ে মার্কিন প্রসিকিউটর বলেন, হ্যাকার দলটি ২০১৮ সালের শীতকালীন অলিম্পিক, ২০১৭ সালের ফরাসি প্রেসিডেন্ট নির্বাচন এবং ইউক্রেনের বৈদ্যুতিক গ্রিড অচল করার চেষ্টাও করেছিল।

বিজ্ঞাপন
default-image

সংবাদ সম্মেলনে যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল জন ডিমারস বলেন, ‘রাশিয়া যতটা ক্ষতিকর এবং দায়িত্বহীনভাবে তাদের সাইবার সক্ষমতার অপব্যবহার করছে, আর কোনো দেশই তা করেনি।’

এদিকে সাইবার হামলাটিকে বেপরোয়া হিসেবে উল্লেখ করেছেন যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্রসচিব ডমিনিক রাব। তিনি বলেন, ‘আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। ভবিষ্যতে এমন ক্ষতিকর সাইবার হামলা রুখে দিতে মিত্র রাষ্ট্রগুলোর সঙ্গে কাজ করে যাবে যুক্তরাজ্য।’

২০১৮ সালে দক্ষিণ কোরিয়ার পিয়ংচ্যাংয়ে অনুষ্ঠিত শীতকালীন অলিম্পিককে লক্ষ্য করে চালানো সাইবার হামলার বিষয়েও কথা বলেন যুক্তরাজ্যের ফরেন অফিস। সে সময় হামলাটি এমনভাবে চালানো হয়েছিল যেন মনে হয় নেপথ্যে উত্তর কোরিয়া কিংবা চীন আছে।

মন্তব্য পড়ুন 0