default-image

২৮ হাজার ব্লু-রে ডিস্কে যত তথ্য রাখা যায়, ১২ সেন্টিমিটারের এক অপটিক্যাল ডিস্কেই সে পরিমাণ তথ্য রাখার প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করছেন গবেষকেরা। সেটা যদি সম্ভব হয়, তবে পুরো নেটফ্লিক্স এক ডিস্কেই রাখা যাবে।

চীনের ইউনিভার্সিটি অব সাংহাই ফর সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি, অস্ট্রেলিয়ার আরএমআইটি ইউনিভার্সিটি এবং ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব সিঙ্গাপুরের ওই গবেষক দলের উদ্ভাবিত পদ্ধতি অপটিক্যাল ডিস্কে ডেটার ঘনত্ব বাড়াবে।

ডেটা সংরক্ষণের কার্যকরী উপায় উদ্ভাবনের চেষ্টা চলছে প্রতিনিয়ত। বিশেষ করে চৌম্বকীয় ডিস্কের ওপর নির্ভরতা কমানোর মাধ্যমে ডেটা সেন্টারের কার্বন নির্গমনের হার কমিয়ে আনার লক্ষ্যে বেশি জোর দেওয়া হচ্ছে।

সায়েন্স অ্যাডভান্সেস জার্নালে প্রকাশিত গবেষণাপত্রে বলা হয়, ডেটার ক্রমবর্ধমান চাহিদা মেটাতে সেরা অপশন হিসেবে লেজার-নির্ভর অপটিক্যাল ডেটা স্টোরেজ ব্যবহার করা হলেও তাতে সীমিত আকারে তথ্য ধারণ করা যায়। এর বদলে তাঁরা ব্যবহার করছেন নতুন ধরনের ন্যানো কম্পোজিট উপাদান। প্রযুক্তিটি তুলনামূলক কম ব্যয়বহুল। এতে প্রচলিত পদ্ধতির তুলনায় নতুন প্রযুক্তি ব্যবহার করলে ডেটা সেন্টার স্থাপনের খরচও কমে যাবে।

গবেষকদের দাবি, কার্যকর ব্যবহারের জন্য প্রযুক্তিটির আরও উন্নয়ন প্রয়োজন। তবে বর্তমান ফলাফল ডেটা স্টোরেজের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় সম্ভাবনার নতুন পথ তৈরি করবে। এ প্রযুক্তি বড় পরিমাণে অপটিক্যাল ডিস্ক তৈরির উপযুক্ত। তাই সম্ভাবনা অসীম।

বিজ্ঞাপন
প্রযুক্তি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন