default-image

২০২৪ সালে চাঁদে মানুষবিহীন মহাকাশযান পাঠাতে চায় সংযুক্ত আরব আমিরাত (ইউএই)। দেশটির প্রধানমন্ত্রী এবং দুবাইয়ের শাসক শেখ মোহাম্মাদ বিন রশিদ আল মাকতুম আজ মঙ্গলবার এ ঘোষণা দেন।

টুইটারে শেখ মোহাম্মাদ লেখেন, ‘আমিরাতের তৈরি এই চন্দ্রযান ২০২৪ সালে চাঁদের এমন অঞ্চলে অবতরণ করবে, যেখানে মানুষ কখনো আগে যায়নি।’

তবে ঠিক কোথায় অবতরণ করবে, বা কোন অঞ্চল ঘুরে দেখবে, কিংবা মহাকাশে চন্দ্রযানটি কীভাবে পাঠাবে, তা খোলাসা করে বলেননি শেখ মোহাম্মাদ বিন রশিদ আল মাকতুম। তাঁর বাবা শেখ রশিদ বিন সাঈদ আল মাকতুমের নামানুসারে চন্দ্রযানের নাম দেওয়া হবে ‘রশিদ’।

২০২৪ সালে যদি তাদের অভিযান সফল হয়, তবে চতুর্থ দেশ হিসেবে চাঁদে চন্দ্রযান অবতরণ করাবে ইউএই। এর আগে যুক্তরাষ্ট্র, সোভিয়েত ইউনিয়ন এবং চীন চাঁদে রোভার পাঠিয়েছিল। আর ভারত, ইসরায়েল ও জাপানের অভিযান ব্যর্থ হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
default-image

গত জুলাইয়ে মঙ্গলে পাঠানোর জন্য দেশটির ‘আমাল’ নামের স্পেস প্রোব পাঠানো হয় জাপান থেকে। সেটি এখনো মঙ্গলের পথে রয়েছে। আগামী বছরের ফেব্রুয়ারিতে পৌঁছানোর কথা রয়েছে। আর সেপ্টেম্বর থেকে মঙ্গলের তথ্য পাঠানোর কথা শুরু রয়েছে। সে তথ্য বিভিন্ন দেশের বিজ্ঞানীরা পাবেন। একই বছর সংযুক্ত আরব আমিরাত গঠনের ৫০ বছর পূর্ণ হবে।

গত বছর আন্তর্জাতিক মহাকাশকেন্দ্রে প্রথম নভোচারী পাঠায় ইউএই। চাঁদে সফল অবতরণ করলে দেশটির জন্য মাইলফলক হয়ে থাকবে। তা ছাড়া ২১১৭ সালের মধ্যে মঙ্গলে বসতি গড়ার যে পরিকল্পনা তাদের, সে পথেও আরেক পা এগিয়ে যাবে। সূত্র: এবিসি নিউজ

মন্তব্য পড়ুন 0