চ্যালেঞ্জের মুখে স্যামসাং

বিজ্ঞাপন
default-image

বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে এসে মুনাফা কমে যাওয়ার খবর জানিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিষ্ঠান স্যামসাং ইলেকট্রনিকস। তাদের মূল আয়ের জায়গা চিপ ব্যবসা থেকে আয় কমেছে। বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মুনাফা কমে যাওয়াসহ সামনে অনেক চ্যালেঞ্জ রয়েছে বলে সতর্ক করেছে স্যামসাং।

বিশ্বের বৃহত্তম স্মার্টফোন ও মেমোরি চিপ নির্মাতা স্যামসাংয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, গত বছরের তুলনায় এ বছর তাদের পরিচালন মুনাফা প্রায় ৫৬ শতাংশ কমেছে।

যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের বাণিজ্যযুদ্ধের কারণে স্মার্টফোনশিল্পের ধীরগতি এর অন্যতম কারণ হতে পারে। এ ছাড়া সিউল ও টোকিওর মধ্যেকার বাণিজ্যযুদ্ধের কারণেও স্যামসাংয়ের প্রবৃদ্ধি বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

গত এপ্রিল থেকে জুন—তিন মাসে ৪৬০ কোটি মার্কিন ডলার পরিচালন মুনাফা করার কথা জানিয়েছে স্যামসাং। তারা আয়ের যে পূর্ব লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছিল, এটা তার কাছাকাছি।

স্যামসাং এক বিবৃতিতে বলেছে, মেমোরি চিপ বাজারের চাহিদা কিছুটা বাড়লেও বাজার দুর্বলতা ও চিপের দাম কমে যাওয়ায় তারা সমস্যায় পড়েছে। ব্যবসার ক্ষেত্রে অনিশ্চয়তা ছাড়াও বৈশ্বিক সামষ্টিক অর্থনৈতিক পরিবেশের পরিবর্তনের কারণে তাদের চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হয়েছে।

স্যামসাং বছরের তৃতীয় প্রান্তিকে ভাঁজ করার সুবিধাযুক্ত গ্যালাক্সি ফোল্ড স্মার্টফোনসহ নতুন স্মার্টফোন আনতে পারে। এর আগে স্ক্রিন ভেঙে যাওয়ার সমস্যা থাকায় গ্যালাক্সি ফোল্ড বাজারে আনতে পারেনি প্রতিষ্ঠানটি।

স্মার্টফোনের ডিসপ্লে ভেঙে যাওয়ার খবর স্যামসাংয়ের জন্য বিব্রতকর পরিস্থিতি সৃষ্টি করে। এতে তাদের স্মার্টফোন বিক্রি কমে যায়। এ ছাড়া চীনা স্মার্টফোন নির্মাতা হুয়াওয়ের সঙ্গে তীব্র প্রতিযোগিতার মুখে পড়তে হয়েছে স্যামসাংকে।

গত সপ্তাহে স্যামসাং জানিয়েছে, স্মার্টফোন উন্নত করে আগামী সেপ্টেম্বরে গ্যালাক্সি ফোল্ড বাজারে ছাড়তে পারে তারা।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন