তথ্যপ্রযুক্তি উন্নয়নে বাংলাদেশ-সৌদি একসঙ্গে কাজ করবে

বিজ্ঞাপন
default-image

তথ্যপ্রযুক্তির উন্নয়নে বাংলাদেশের সঙ্গে সৌদি আরব কাজ করবে বলে জানিয়েছেন তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। সৌদি সরকারের যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রীর আমন্ত্রণে তাঁর সঙ্গে দ্বি-পাক্ষিক বৈঠক শেষে এ কথা জানান তিনি।

আজ শুক্রবার সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ব্যবহার করে প্রতিনিধির মাধ্যমে তিনি প্রথম আলোকে বলেন, ‘বর্তমান বিশ্বের গতিধারাই হল পারস্পরিক সহযোগিতা। তাই ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়নে আমাদের বৈশ্বিক অংশীদারত্ব নিশ্চিত করতে হবে এবং পারস্পরিক সহযোগিতা অব্যাহত রাখতে হবে। এরই অংশ হিসেবে আমি সৌদি সরকারের যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রীর আমন্ত্রণে তাঁর সঙ্গে দ্বি-পাক্ষিক বৈঠক করেছি। বৈঠকে বাংলাদেশের আইসিটি খাতে সৌদি বিনিয়োগ প্রবাহ বৃদ্ধি, তথ্যপ্রযুক্তির উন্নয়নে একসঙ্গে কাজ করাসহ মোট ১১টি বিষয়ে ঐকমত্যে পৌঁছেছি।’
তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, সৌদি সরকারের যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোহাম্মদ বিন ইব্রাহিম আল-সুওয়াইয়েল এর আমন্ত্রণে ৬ই অক্টোবর থেকে সৌদি আরবে আছেন জুনাইদ। ৭ অক্টোবর দ্বি-পাক্ষিক বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এ ছাড়াও সৌদি আরবের কমিউনিকেশন অ্যান্ড ইনফরমেশন টেকনোলজি (সিআইটি) কমিশন ও সৌদি টেলিকম কমিশনের (এসটিসি) সঙ্গেও আলোচনায় অংশ নেন তিনি। প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে সফরে রয়েছেন বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক এসএম আশরাফুল ইসলাম, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের অতিরিক্ত সচিব হারুনুর রশিদ এবং ন্যাশনাল ডেটা সেন্টারের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক তারেক বরকতুল্লাহ।
তথ্যপ্রযুক্তি ক্ষেত্রে বাংলাদেশের অগ্রগতি ও সরকারের কর্মকাণ্ড সৌদি সরকারের যোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রীকে অবহিত করেছেন বলে দাবি করেছেন জুনাইদ আহমেদ। বৈঠকে দুই দেশের মধ্যে আইসিটি খাতে পারস্পরিক সহযোগিতা অব্যাহত রাখার পাশাপাশি বাংলাদেশের আইসিটি খাতের উন্নয়নে একসঙ্গে কাজ করা, সৌদি বিনিয়োগ প্রবাহ বৃদ্ধি করা ও দুই দেশের স্বার্থ-সংশ্লিষ্ট অন্যান্য বিষয়েও এক আলোচনায় অংশ নেন তাঁরা।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন