default-image

উইপোকা দেখলে খুশি হওয়ার কোনো কারণ নেই। কারণ এর কাজ হচ্ছে কাটাকুটি। কাঠ পর্যন্ত কেটে গুঁড়িয়ে দেয়। কিন্তু তলে তলে কী যে উপকার করে, তা অনেকেরই অজানা। কোনো এলাকায় উইপোকার ঢিবি থাকলে তা উষর মরু প্রান্তরে পরিণত হওয়া থেকে সেখানকার মাটিকে রক্ষা করে। একদল গবেষক তাঁদের গবেষণালব্ধ তথ্য থেকে এই দাবি করেছেন।
যুক্তরাষ্ট্রের প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয়ের ওই গবেষকদের দাবি, প্রায় শুষ্ক এলাকায় মরুময়তা ঠেকাতে ভূমিকা রাখতে পারে উইপোকা। জলবায়ু পরিবর্তনের নেতিবাচক প্রভাব প্রতিরোধেও এই পোকা অবদান রাখতে পারে।
সায়েন্স সাময়িকীতে এই গবেষণাবিষয়ক নিবন্ধ প্রকাশিত হয়। নিবন্ধের তথ্য উল্লেখ করে গত শুক্রবার বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে জানানো হয়, মরুর বিস্তার ঠেকাতে উইপোকার ঢিবি বেশ উপকারী।
গবেষকদের ভাষ্য, উইপোকার ঢিবি মাটির আর্দ্রতা ও পুষ্টি সংরক্ষণ করে। ভূমিতে অসংখ্য ছিদ্র তৈরি করে। এর ফলে আফ্রিকা, লাতিন আমেরিকা ও এশিয়ার তৃণভূমি, বৃক্ষহীন ভূমি ও প্রায় শুষ্ক এলাকায় ভূমির ভেতর দিয়ে ভালোভাবে পানি চলাচল করতে পারে। বাস্তুসংস্থানে উইপোকার ঢিবির ওপরে বেড়ে ওঠা উদ্ভিদ মরুময়তা-প্রতিরোধী।
গবেষণার নেতৃত্ব দেওয়া প্রিন্সটন ইউনিভার্সিটির কোরিনা টারনিটা বলেন, সব জায়গায়ই সমান বৃষ্টি হয়। কিন্তু ভূমির ভেতর দিয়ে ভালোভাবে পানি চলাচলে উইপোকা সহায়তা করে। এ কারণে উইপোকার ঢিবির ওপর ও আশপাশে উদ্ভিদ বেড়ে ওঠে। এই গবেষকের ভাষ্য, উইপোকার ঢিবি বাস্তুসংস্থানকে ধকল কাটাতে সহায়তা করে।

বিজ্ঞাপন
প্রযুক্তি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন