আমি সম্পূর্ণ সুস্থ, স্ত্রীও করোনা আক্রান্ত নন: কাজী মারুফ

বিজ্ঞাপন
default-image

হঠাৎ করেই আজ শনিবার রাতে খবর রটে নিউইয়র্কে থাকা বাংলাদেশি চিত্রনায়ক কাজী মারুফ ও তাঁর স্ত্রী রাইসা করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। এরপর সরাসরি মারুফের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি প্রথম আলোকে জানালেন, ‘আমি ভালো আছি। আর আমার স্ত্রীও করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়নি।’

 মারুফ জানান, নিউইয়র্কে এখন হালকা বৃষ্টি হচ্ছে। আবহাওয়া পরিবর্তনের কারণে আমার স্ত্রী রাইসার জ্বর হয়েছে।  যুক্তরাষ্ট্রে এই মুহূর্তে কোভিড ১৯ আক্রান্তের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। এর মধ্যে স্ত্রীর জ্বরের  কারণে এমনটা ছড়িয়েছে।

মারুফ বলেন, ‘নিউইয়র্কে আমার পরিচিত অনেকে এই রোগে সংক্রমিত হয়েছেন। গতকাল সন্ধ্যায় (নিউইয়র্ক স্থানীয় সময়) নিজের জ্বর শুরু হওয়ায় রাইসা ভীত হয়ে পড়ে। আমার শাশুড়িকে খবরটি জানায়। হয়তো আমার শাশুড়ির কাছ থেকে বাবা (কাজী হায়াত) খবরটা জেনে উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন। সবাইকে আশ্বস্ত করে বলতে চাই, আমাদের তেমন কিছুই হয়নি।’ 
নিউইয়র্কের রিচমন্ড হিল এলাকায় পরিবার নিয়ে থাকেন কাজী মারুফ। জানালেন, দুই সপ্তাহ ধরে সন্তানদের স্কুল বন্ধ। বড় ধরনের প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছেন না তাঁরা কেউ। জ্বরের কারণে সবার নিরাপত্তার কথা ভেবে আইসোলেশনে আছেন রাইসা।

default-image

মারুফ জোর দিয়ে বলেন, ‘এটা ঠিক যে আমার স্ত্রী জ্বরে আক্রান্ত। তবে তা এখন পর্যন্ত কোভিড ১৯ বা করোনাভাইরাস নয়। আমি শতভাগ সুস্থ আছি। আল্লাহর রহমতে এখন পর্যন্ত আমার কোনো সমস্যা নেই।’

‘ইতিহাস’ সিনেমা দিয়ে চলচ্চিত্রে অভিনয় শুরু করেন পরিচালক কাজী হায়াতের পুত্র কাজী মারুফ। অ্যাকশনধর্মী সিনেমার জন্য তিনি পরিচিতি লাভ করেন। প্রথম সিনেমায় অভিনয় করেই তিনি অর্জন করেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। এরপর ‘অন্ধকার’, ‘রাস্তার ছেলে’, ‘বস্তির ছেলে কোটিপতি’, ‘দারোয়ানের ছেলে’, ‘দেহরক্ষী’, ‘ইভটিজিং’, ‘সর্বনাশা ইয়াবা’সহ বেশ কিছু জনপ্রিয় সিনেমায় অভিনয় করেন তিনি।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন