বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

জামিনের জন্য আরিয়ানকে এক লাখ টাকার মুচলেকা দিতে হয়েছে। বলিউড অভিনেত্রী ও শাহরুখের বন্ধু জুহি চাওলার জিম্মায় আরিয়ানকে ছাড়া হয়েছে। গতকাল বিকেলে পাঁচ পৃষ্ঠার একটি আদেশপত্রে স্বাক্ষর করেন বিচারক এন ডাব্লিউ সামব্রে। তবে আনুষ্ঠানিকতা শেষে সে আদেশপত্র নির্ধারিত সময়ের ভেতর জেলে পৌঁছেনি। কারাগারের নিয়ম অনুযায়ী, বিকেল সাড়ে পাঁচটার পর কোনো অভিযুক্তের জামিনসংক্রান্ত কাগজ তারা গ্রহণ করে না।

default-image

তাই নিয়ম অনুযায়ী আর্থার রোড জেল আরিয়ানসহ বাকিদের জামিনসংক্রান্ত নথিপত্র গ্রহণ করেনি। তবে শোনা যাচ্ছিল আরিয়ান তারকাপুত্র, তাই হয়তোবা তাঁকে বিশেষ সুবিধা দেওয়া হতে পারে। গতকাল বিকেলে জেল সুপার নিতীন ভায়চাল প্রথম আলোকে এ প্রসঙ্গে জানান, আরিয়ান আর পাঁচজন কয়েদির মতো একজন। তাঁকে বিশেষ সুবিধা দেওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।

আরিয়ানসহ বাকি অভিযুক্ত ব্যক্তিদের একসঙ্গে ছাড়া হবে। আর আইনি কাগজপত্র খুঁটিয়ে দেখার পর তবেই সবাইকে ছাড়া হবে। তাই কাল অর্থাৎ শনিবার সকাল ১০টার আগে কিছু হবে না। আজ অর্থাৎ শনিবার সকালে প্রথম আলোকে জেল সুপার নিশ্চিত করে জানান, আজ সকাল সাড়ে ৯টা থেকে জামিনসংক্রান্ত আইনি প্রক্রিয়া শুরু হয়ে যাবে। আরিয়ানসহ এই মামলার বাকি সব অভিযুক্তরা একসঙ্গে ছাড়া পাচ্ছেন। তাই একটু বেশি সময় লাগবে। আরিয়ানকে বিশেষ কোনো সুবিধা দেওয়া হয়নি, হবেও না।

default-image

২ অক্টোবর মুম্বাই থেকে গোয়াগামী প্রমোদতরি থেকে আটক করা হয়েছিল আরিয়ানকে। ৩ তারিখ তাঁকে গ্রেপ্তার করে ভারতের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ ব্যুরো (এনসিবি)। ৮ অক্টোবর থেকে আর্থার রোড জেলে বন্দী আরিয়ান। গত ২৫ দিনে বেশ কয়েকবার জামিনের আবেদন করেন শাহরুখপুত্র। কিন্তু গত বৃহষ্পতিবারের আগপর্যন্ত প্রতিবারই খারিজ হয়েছে।

বলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন