বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

একটা সময় কপিল শর্মা শো ও নবজ্যোত সিং সিধু প্রায় সমার্থক শব্দে পরিণত হয়েছিল। তাৎক্ষণিক কবিতা আবৃত্তি করে আর দারুণ সব কথা বলে শো মাতিয়ে রাখতেন সিধু। ২০১৯ সালে ওই শো ছেড়ে দেন সিধু। রাজনীতিতে পুরোপুরি মনোনিবেশ করেন। তাঁর জায়গায় আসেন অর্চনা। ভারতীয় গণমাধ্যমে খবর, সম্প্রতি পাঞ্জাব কংগ্রেসের সভাপতি পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন এই সাবেক ক্রিকেটার।

default-image

এরপর থেকেই ইন্ডাস্ট্রিতে গুঞ্জন, তবে কি ফের কপিল শর্মা শোতে আসতে চলেছেন সিধু? অর্চনার কানেও গেছে এই কানাঘুষা। অর্চনা সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, সিধুর জন্য আসন ছেড়ে দিতে এক মুহূর্তও দেরি করবেন না তিনি। এই বলিউড অভিনেত্রী ভারতীয় গণমাধ্যমকে বলেন, ‘সত্যিই যদি এই শোতে ফিরে আসতে চায় সিধু, একদিক থেকে আমার জন্য তা ভালোই হবে। এই শোর জন্য এত দিন যেসব কাজ করতে পারিনি, এবার সেসব নিশ্চিন্তে করতে পারব। প্রতি সপ্তাহে দুটি দিন আমাকে এই শোর জন্য অনেক আগে থাকতেই ফাঁকা রেখে দিতে হয়। ফলে প্রস্তাব পেলেও অনেক কাজ নিতে পারিনি। বিশেষ করে মুম্বাই বা ভারতের বাইরের শুটিং করতে পারিনি এত দিন।’ কিছুদিন আগেই লন্ডনে একটি শুটিংয়ের প্রস্তাব পেয়েছিলেন অর্চনা। কিন্তু দ্য কপিল শর্মা শোর কারণে না করে দিতে হয়েছে।

default-image

তবে শোতে তাঁর অংশগ্রহণ নিয়ে ট্রলডও কম হননি এই অভিনেত্রী। ট্রলারদের প্রশ্ন, ‘বসে থাকা ছাড়া তিনি করেনই–বা কী?’ অর্চনাও মোক্ষম জবাব দিয়েছেন, ‘একভাবে ছয় থেকে সাত ঘণ্টা বসে থাকা, অন্যের কৌতুক শোনা এবং পরিস্থিতি অনুযায়ী হেসে ওঠা কিংবা প্রতিক্রিয়া দেওয়াটা যে কত কঠিন, বুঝবেন যদি একদিন আমার জায়গায় বসেন। আমার অনুরোধ, তাঁরা যেন একদিন সেটে আসেন। আর পুরো ব্যাপারটা দেখে যান।’
বলে রাখা ভালো, শো কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে এখন পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনো ঘোষণা আসেনি।

বলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন