কোহলিকে নিয়ে ঘরের খবর ফাঁস করলেন আনুশকা

বিজ্ঞাপন
default-image

সম্প্রতি অনলাইনে ‘আস্ক মি এনিথিং’ সেশন খেলেছেন আনুশকা শর্মা। এর ফলে ভক্তরা ইচ্ছেমতো একটা অ্যাপসের মাধ্যমে প্রশ্ন পাঠিয়েছে ‘পিকে’, ‘ইয়ে দিল হ্যায় মুশকিল’, ‘পরি’, ‘জাব হ্যারি মেট সেজাল’, ‘সঞ্জু’, ‘ব্যান্ড বাজা বারাত’খ্যাত আনুশকাকে। আনুশকা তাঁর পছন্দমতো কয়েকটি প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন।

default-image

অনলাইন বুলিং তারকাদের প্রাত্যহিক জীবনের অংশ। আর আনুশকার জীবনসঙ্গী ভারতীয় ক্রিকেট দলের ক্যাপটেন হওয়ায় আনুশকাকে আজেবাজে কথা বলার মাত্রা বেশি। ভারতীয় ক্রিকেট দল হারলে এর সব দায়ও আনুশকা ঘাড়ে চাপিয়ে তাঁর কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়। প্রশ্ন এসেছিল, জীবনের এসব নেতিবাচকতা কীভাবে সামাল দেন আনুশকা? উত্তর এসেছে, ‘আমি এসব পাত্তা না দেওয়ার চেষ্টা করি। কষ্ট পাই না তা না। তবে নেতিবাচকতা আপনাকে শক্তিশালী করে। নিজের ভেতরটাকে উপলব্ধি করতে শেখায়।’ খাদ্যাভ্যাস সম্পর্কে জানতে চাইলে আনুশকা জানান, তিনি ২০১৫ সাল থেকে নিরামিষভোজী। আর এটা তাঁর জীবনের সেরা সিদ্ধান্তগুলোর ভেতর একটি। পাহাড়ি খাবার ভালোবাসেন। ভালোবাসেন মোমো আর পানিপুরি।

default-image

নিজেকে দুর্দান্ত রাঁধুনি বলেই দাবি আনুশকার। বিরাট কোহলি কিসে বিরক্ত হন? উত্তরে ঘরের খবর ফাঁস করেছেন আনুশকা। জানিয়েছেন, প্রায়ই ঘরে বোর্ড খেলায় হেরে যান বিরাট। আর তাতে নাকি বেজায় বিরক্ত হন এই ভারতীয় অধিনায়ক। কারণ, হারতে মোটেই ভালোবাসেন না কোহলি। কোন কাজে আনুশকা বিরাটের সাহায্য চাইবেন? আনুশকা জানিয়েছেন, শক্ত হয়ে চেপে থাকা বোতলের ছিপি খুলতে আর ভারী চেয়ার টেনে তুলতে।

default-image

সময়টা দুর্দান্ত যাচ্ছে আনুশকার। বাড়ির সামনের ছোট্ট জায়গায় চলছে বিরাট–আনুশকার ক্রিকেট খেলা। আনুশকা বল করছেন, বিরাট ব্যাট চালাচ্ছেন, এ রকম একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে লকডাউনে। প্রযোজক আনুশকা শর্মার সবচেয়ে বড় সফলতা এসেছে এই লকডাউনে। ওয়েব সিরিজ ‘পাতাল লোক’ ও ভৌতিক নারীবাদী সিনেমা ‘বুলবুল’—দুটোই দুর্দান্ত আলোচনার সৃষ্টি করেছে। লকডাউনে বিরাটের চুল কেটে দিয়েছেন আনুশকা। দুজনে মিলে দাঁড়িয়েছেন আসামের বন্যাদুর্গতদের পাশে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন