default-image

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গানের লুক রিক্রিয়েট করার নেশায় মেতেছে নেট জনতা। আর তা ঘিরে জ্যাকুলিনের মন্তব্য, ‘দারুণ সব প্রতিক্রিয়া পাচ্ছি। সবাই যেসব রিক্রিয়েশন, নাচের ভিডিও পোস্ট করছেন, তা আমার দারুণ পছন্দ হয়েছে। তাঁরা গানটাকে অন্য এক মাত্রায় পৌঁছে দিয়েছেন।’

default-image

বাদশাহর গানটির প্রসঙ্গে এই বলিউড অভিনেত্রী বলেছেন, ‘প্রথমবার শুনেই মনে হয়েছিল গানটির প্রতি সবাই আকর্ষিত হবেন। আর নিশ্চিতভাবে গানটি সবার গানের তালিকায় জায়গা করে নেবে। মনে হচ্ছে বাদশাহ আর আমি একই পথের পথিক।’

default-image

রাজস্থানের জয়সলমিরের ভয়ানক তাপমাত্রার মধ্যে গানটির শুটিং হয়েছে। জ্যাকুলিন বলেছেন, ‘শুটিংয়ের সময় গরমে আমাদের অবস্থা খারাপ হয়ে গিয়েছিল। গরমের কারণে আমরা সবাই ক্লান্ত হয়ে পড়তাম। তবে আমাদের এক দুর্দান্ত দল ছিল। তাই আমরা সেই ক্লান্তি দূর করে ফেলতাম।’

default-image

জ্যাকুলিন ইউ ওনলি লিভ ওয়ানস (ওয়াইওএলও) নামের একটা সংস্থা স্থাপন করেছেন। এই বলিউড নায়িকা ওয়াইওএলও সংস্থার মাধ্যমে ১ লাখ মানুষের খাওয়াদাওয়ার দায়িত্ব, রাস্তার ধারের প্রাণীদের খাবার আর মুম্বাই পুলিশকে মাস্ক ও স্যানিটাইজার বিতরণ করেছেন।
জ্যাকুলিনের হাতে এই মুহূর্তে ‘কিক টু’, ‘ভূত পুলিশ’, ‘সার্কাস’, ‘বচ্চন পান্ডে’, ‘রাম সেতু’র মতো ছবি আছে। লীনা যাদবের ‘শেয়ারিং আ রাইড’ ছবির মাধ্যমে হলিউডেও পা রাখতে চলেছেন জ্যাকুলিন।

default-image
বলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন