default-image

আবার বড় পর্দায় অক্ষয় কুমার আর কৃতি শ্যানন প্রেম করতে পুরোপুরি প্রস্তুত। এর আগে এই জুটিকে দেখা গেছে ‘হাউসফুল ফোর’ ছবিতে। ফারহাদ সামঝি পরিচালিত ‘বচ্চন পান্ডে’ ছবিতে আবার অক্ষয় আর শ্যানন নতুন প্রেমকাহিনি আঁকতে আসছেন।
গত বছর জুলাইয়ে বলিউড সুপারস্টার অক্ষয় কুমার ধুমধাম করে ‘বচ্চন পান্ডে’ ছবির ঘোষণা করেছিলেন। অক্ষয় এই ছবিতে তাঁর ফার্স্ট লুকও প্রকাশ্যে এনেছিলেন। কিছুদিন পর জানা যায় যে এই ছবিতে অক্ষয়ের বিপরীতে কৃতিত্বের সঙ্গে নাম লিখিয়েছেন কৃতি। কিন্তু করোনার কারণে ছবির শুটিং শুরু করতে পারেননি নির্মাতারা। এবার এই ছবির দল পুরোদমে শুটিং শুরু করতে চলেছেন।

default-image

জানা গেছে, অক্ষয়-কৃতি ‘বচ্চন পান্ডে’ ছবির শুটিংয়ের জন্য পুরোপুরি তৈরি। আগামী বছর জানুয়ারি মাস থেকে শুরু হবে এই ছবির শুটিং। আর মার্চের মধ্যেই শুটিং শেষ হয়ে যাবে। পরিচালক ফারহাদ সামঝি পুরো দল নিয়ে জানুয়ারি মাসে রাজস্থানের জয়সলমীরের উদ্দেশে পাড়ি জমাবেন।

বিজ্ঞাপন

সেখানে টানা ৬০ দিন শুটিং হবে। জানা গেছে, এরই মধ্যে শুটিং–সংক্রান্ত সব আইনি অনুমতি নেওয়া হয়েছে। জয়সলমীর শহরের আসল লোকেশনে ম্যারাথন শুটিং হবে।
খবর অনুযায়ী, ‘বচ্চন পান্ডে’ ছবির সমগ্র দল এই ঐতিহাসিক শহরের প্যালেস হোটেলে থাকবেন। এই প্যালেস হোটেলের মধ্যে বেশ কিছু দৃশ্যের শুটিং হবে।

default-image

ফারহাদের এই ছবিতে ধুন্ধুমার অ্যাকশন দৃশ্য আছে। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে এই ছবির সদস্যরা শুটিংস্থলে যোগ দেবেন। তাই সব ধরনের সাবধানতা নিতে চলেছেন ছবির নির্মাতারা। জানা গেছে, সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এক কর্মশালার আয়োজন করা হবে। ডিসেম্বরের শেষের দিকে সব অভিনেতা ও কলাকুশলীর কোভিড পরীক্ষা বাধ্যতামূলক রাখা হয়েছে। শুটিং শুরু হওয়ার আগে সব সদস্যের তিন দিনের কোয়ারেন্টিন থাকতে হবে। জয়সলমীরে বিশেষ মেডিকেল দল রাখবেন নির্মাতারা। পুরো সেট ভালোভাবে স্যানিটাইজ করে নেওয়া হবে।

default-image


‘বচ্চন পান্ডে’ ছবিতে অক্ষয় কুমারকে দেখা যাবে এক নতুন রূপে। জানা গেছে, এই ছবিতে তিনি গ্যাংস্টারের ভূমিকায় অভিনয় করতে চলেছেন। আর কৃতিকে দেখা যাবে সাংবাদিকের চরিত্রে। ছবিতে সিনেমার প্রতি অক্ষয়-কৃতির ভালোবাসা তাঁদের কাছাকাছি আনবে। ‘বচ্চন পান্ডে’ ছবিতে দেখা যাবে অক্ষয় অভিনেতা হওয়ার স্বপ্নে বিভোর। আর কৃতি চিত্রপরিচালক হতে চান। তাই সব মিলিয়ে নতুন স্বাদ আনতে চলেছে ফারহাদের ‘বচ্চন পান্ডে’ ছবিটি।

default-image
মন্তব্য পড়ুন 0