বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

কিন্তু ‘সূর্যবংশী’র ওপর হঠাৎ এত খেপলেন কেন কৃষকেরা? কেন্দ্রীয় সরকারের জারি করা নতুন কৃষি আইনের বিরুদ্ধে গত বছরের নভেম্বর থেকে ভারতের রাজধানীতে আন্দোলন শুরু করেন কৃষকেরা। শীত, রোদ, বৃষ্টি, মহামারি, পুলিশ কিছুই তাঁদের টলাতে পারেনি। তাঁদের সমর্থনে এগিয়ে এসেছে আন্তর্জাতিক মহল। কৃষকদের সমর্থনে টুইট করেছিলেন হলিউডের অনেক তারকা। কিন্তু কৃষকদের দাবি মানা হয়নি। কিষাণ একতা মোর্চার দাবি, ‘সূর্যবংশী’ ছবির শিল্পী ও কলাকুশলীরা পাঞ্জাবের কৃষক আন্দোলনে সমর্থন দেননি। ‘তারা এলেন, লুঠ করলেন তারপর আমাদের ভুলে গেলেন। পাঞ্জাবের হলে আমরা “সূর্যবংশী” চালাতে দেব না। আমাদের আর লুট করার সুযোগ দেব না।’ ফেসবুকে এভাবেই বিবৃতি দিয়েছে কিষাণ একতা মোর্চা।

পাঞ্জাবের কৃষকেরা এখনো তাঁদের আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে সমস্যাটির একটি সুষ্ঠু সমাধানের পথ বের করার পক্ষে টুইট করেছিলেন অক্ষয় কুমার। তারপর থেকে তিনি নিশ্চুপ। সেই তোপে পড়ল অক্ষয় কুমার অভিনীত ছবি ‘সূর্যবংশী’। শনিবার হোশিয়ারপুরের কৃষকেরা হলের সামনে বিক্ষোভ করেন, পোস্টার ছিঁড়ে বন্ধ করে দেন প্রদর্শনী। এ ঘটনায়ও নিশ্চুপ অক্ষয়।

default-image

প্রায় পাঁচ হাজার প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে ‘সূর্যবংশী’। অক্ষয়ের সঙ্গে এতে অভিনয় করেছেন ক্যাটরিনা কাইফ। দর্শকদের মধ্যে ছবিটি নিয়ে এমন উন্মাদনা সৃষ্টি হয়েছে যে কোনো কোনো জায়গায় ভোর সাড়ে চারটায়ও শো রাখতে হয়েছে। চলচ্চিত্র বাণিজ্য বিশ্লেষক তরণ আদর্শ মনে করেন, ৫০ শতাংশ দর্শক নিয়ে হল চললেও প্রথম দিনই ‘সূর্যবংশী’র বক্স অফিস আয় প্রায় ২৭ কোটি। সেই পরিপ্রেক্ষিতে সপ্তাহান্তে এই সিনেমা থেকে আয় ৫০ কোটি ছাড়াবে।

বলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন