বচ্চন পরিবারে স্বস্তি, বাড়ি ফিরলেন অভিষেক

বিজ্ঞাপন
default-image

অবশেষে বচ্চন পরিবারে চূড়ান্ত স্বস্তির নিশ্বাস। হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন জুনিয়র বচ্চন, বলিউড অভিনেতা অভিষেক বচ্চন। তাঁর কোভিড-১৯ পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। আজ শনিবার সকালে টুইট করে এ খবর জানিয়েছেন অমিতাভ-জয়া দম্পতির পুত্র অভিষেক বচ্চন। অমিতাভও টুইট বার্তায় খবরটি জানিয়ে ভক্তদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন।

কোভিড-১৯ রীতিমতো গ্রাস করেছিল ‘বলিউডের শাহেনশাহ’ অমিতাভ বচ্চনের পরিবারকে। এ পরিবারের চার সদস্য একসঙ্গে করোনায় আক্রান্ত হন। গত ১১ জুলাই অমিতাভ ও অভিষেক করোনায় সংক্রমিত হয়ে মুম্বাইয়ের নানাবতী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন ও আরাধ্যর শরীরেও করোনাভাইরাস পাওয়া গিয়েছিল। কিন্তু তাঁরা বাসাতেই কোয়ারেন্টিনে ছিলেন। প্রাথমিকভাবে বাড়িতে চিকিৎসা চললেও শ্বাসকষ্ট হওয়ায় তাঁদের ১৭ জুলাই নানাবতী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। ১১ দিন পর ২৮ জুলাই করোনামুক্ত হয়ে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পায় ঐশ্বর্য ও আরাধ্য। তবে চিকিৎসা চলছিল সিনিয়র ও জুনিয়র বচ্চনের।

default-image

২ আগষ্ট অমিতাভের মুক্তি মেলে। সেদিন ছেলে অভিষেক বিকেল ৫টা ১৭ মিনিটে বাবার কোভিডমুক্ত হওয়ার খবর জানান। কিছুক্ষণ পর ৫টা ২২ মিনিটে তিনি নিজের হাসপাতালে অবস্থানের কথাটিও জানান টুইট বার্তায়। সেদিন রাখী বন্ধন উৎসবে অভিষেক হাসপাতালে থাকায় ব্যথিত অমিতাভ নিজের অনুভূতি প্রকাশ করেন টুইটারে। তিনি লিখেছিলেন, ‘করোনাভাইরাস থেকে মুক্তি পাওয়ার পর হাসপাতাল থেকে ফিরে আসতে পেরে খুব খুশি হয়েছি। কিন্তু যখন ভাবছি অভিষেক এখনো চিকিৎসাধীন, তখন খারাপ লাগছে। মুখে কোনো স্বাদ পাচ্ছি না।’

আজ ছেলের বাড়ি ফেরার খবরটিও আনন্দের সঙ্গে শেয়ার করেছেন কোটি ভক্ত–অনুরাগীদের সঙ্গে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন