মারা গেছেন দক্ষিণ ভারতের জনপ্রিয় অভিনেতা চিরঞ্জীবী

বিজ্ঞাপন
default-image

মারা গেছেন ভারতের কন্নড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির জনপ্রিয় অভিনেতা চিরঞ্জীবী সারজা। ‘চিরু’, ‘সিঙ্গরা’, ‘আম্মা আই লাভ ইউ’, ‘আটাগারা’-র মতো অসংখ্য ছবিতে কাজ করেছেন তিনি। গতকাল রোববার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন এই অভিনেতা। তাঁর বয়স হয়েছিল মাত্র ৩৯ বছর।

জানা গেছে, শনিবার শ্বাসকষ্ট এবং বুকে ব্যথা নিয়ে বেঙ্গালুরুর একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে। চিকিৎসকেরা তাঁকে বাঁচানোর বহু চেষ্টা করেছিলেন বলে জানা গেছে। কিন্তু তা কাজে এল না শেষ পর্যন্ত। রোববার সব চেষ্টা ব্যর্থ করে পৃথিবীর বাতাসে শেষবারের মতো নিশ্বাস ছাড়েন দুপুরে। চলে যান না ফেরার দেশে।

ভারত সরকারের নির্দেশমতো কোভিড–১৯ পরীক্ষার জন্য নমুনা নেওয়া হয়েছে। তবে করোনাভাইরাসের আক্রমণ শরীরে হয়েছিল কি না, তা এখনো জানা যায়নি। কন্নড় অভিনেতা অর্জুন সারজার নিকট আত্মীয় ছিলেন চিরঞ্জীবী। প্রবীণ অভিনেতা শক্তি প্রসাদের নাতি ছিলেন তিনি।

default-image

বেঙ্গালুরুর বল্ডউইন স্কুলে পড়াশোনা করেছিলেন চিরঞ্জীবী। পরে বিজয়া কলেজে পড়াশোনা করেন। অর্জুন সারজার সঙ্গে সহকারী পরিচালক হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করেন কন্নড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে। প্রায় ৪ বছর পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন তিনি। ২০০৯ সালে ‘বায়ুপুত্র’ ছবি দিয়ে অভিনয়ের ক্যরিয়ার শুরু করেন তিনি।

এরপর একাধিক ছবিতে কাজ করেছেন তিনি। বড় বাজেটের ছবি ‘রাজা মারঠান্ডা’-র কাজ বাকি থাকতেই চলে গেলেন তিনি। তিনটি ছবি মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে। কন্নড় ইন্ডাস্ট্রিতে খুবই জনপ্রিয় ছিলেন এই অভিনেতা। তাঁর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন সহকর্মীরা।

অল্লু শিরিশসহ বহু অভিনেতা তাঁর অকালমৃত্যুতে টুইটারে শোক প্রকাশ করেছেন। তিনি লেখেন, ‘হঠাৎ চিরঞ্জীবী সরজার চলে যাওয়াটা মেনে নিতে পারছি না। তাঁর পরিবারের প্রতি আমি সমব্যথী।’ সাবেক ভারতীয় ক্রিকেটার অনিল কুম্বলেও টুইটারে লিখেছেন, ‘চিরঞ্জীবী সরজার অকালপ্রয়াণে গভীরভাবে শোকাহত। আশা করি তাঁর পরিবার এই পরিস্থিতি থেকে সামলে উঠবে।’
কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েরিউরাপ্পাও তাঁর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন