default-image

শাহরুখ খানের ফেরার জন্য দীর্ঘ অপেক্ষায় আছেন তাঁর ভক্তরা। ‘জিরো’ ছবির অসফলতার পর এই বলিউড সুপারস্টারের আর কোনো ছবি মুক্তি পায়নি। এমনকি তিনি নতুন কোনো প্রজেক্ট হাতে নেননি। আসলে শাহরুখ কোনো ঝুঁকি নিতে চাননি। ভেবেচিন্তে পা ফেলতে চেয়েছেন তিনি। তাই হয়তো ‘পরিচালক হিসেবে শতভাগ সফল’ রাজকুমার হিরানির ছবির মাধ্যমে কামব্যাক করাই নিরাপদ মনে করছেন কিং খান।

‘টেড টক’-এর সংবাদ সম্মেলনে শাহরুখ খান বলেছিলেন যে তাঁর হাতে এক ডজন চিত্রনাট্য আছে। তবে তিনি এখনো সিদ্ধান্ত নেননি যে কোন ছবিতে কাজ করবেন। শোনা গিয়েছিল, বলিউডের বাদশার কাছে বড় বড় ব্যানারের প্রস্তাব আছে। ভালো ভালো চিত্রনাট্য আছে। তবে শাহরুখ একটু ব্যতিক্রমী চিত্রনাট্যের সন্ধানে ছিলেন। এমন এক চিত্রনাট্য, যা তাঁর ভেতরের অভিনেতাসত্তাটা জাগ্রত করতে পারবে। এমন এক চরিত্র তিনি চেয়েছিলেন, যা সবার অন্তরে চিরকাল বেঁচে থাকবে। আসলে শাহরুখ বুঝেছেন যে এবার ভুল করলে তাঁর ক্যারিয়ার ভরাডুবি হতে পারে। তাই আর ভুল নয়। সবার প্রস্তাব তিনি ফিরিয়ে দিলেও রাজকুমার হিরানিকে ফেরাতে পারেননি। তাই দীর্ঘ সময় ধরে বিটাউনের গুঞ্জন যে হিরানির ছবিতে কাজ করতে চলেছেন শাহরুখ। এখনো পর্যন্ত হিরানির সব ছবি বক্স অফিস কাঁপিয়েছে। তাই এই মুহূর্তে হিরানির থেকে নিরাপদ আর কিছু হতে পারে না। এদিকে দীর্ঘদিন ধরে হিরানিও শাহরুখের সঙ্গে কাজ করতে চেয়েছেন। ‘মুন্নাভাই এমবিবিএস’ আর ‘থ্রি ইডিয়টস’ ছবি দুটির জনপ্রিয় এই পরিচালক কিং খানের সঙ্গে ছবি বানাতে চেয়েছিলেন। কিন্তু কোনো কারণে তা সম্ভব হয়নি। তবে এবার হিরানি আর শাহরুখকে হাতছাড়া করতে চান না। এদিকে কিং খানের জন্য এই মুহূর্তে হিরানির থেকে ভালো অবলম্বন আর কেউ হতে পারে না।

default-image

রাজকুমার হিরানির আগামী এই ছবির গল্পের কিছুটা আভাস পাওয়া গেছে। তাঁর ছবিটি সেই মানুষদের নিয়ে, যাঁরা উপার্জনের আশায় বিদেশে পাড়ি জমান। পাঞ্জাব থেকে প্রচুর তরুণ কানাডায় গেছেন। কানাডা এখন মিনি পাঞ্জাবে পরিণত হয়েছে। পাঞ্জাবি মেয়েরাও কানাডার ছেলেকে বিয়ে করতে চায়। জানা গেছে, শাহরুখ এক পাঞ্জাবি যুবকের চরিত্রে অভিনয় করতে চলেছেন। আর সে জন্য তিনি ইতিমধ্যে প্রস্তুতি নেওয়া শুরু করেছেন। চরিত্রের প্রয়োজনে তাঁর বড় চুল হতে হবে। আর তাই লকডাউনকে কাজে লাগাচ্ছেন শাহরুখ। শোনা গেছে, তিনি চুল বড় করার প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছেন। হিরানির এই ছবির শুটিং হবে পাঞ্জাবে ও কানাডায়। এই পরিচালকের বিশেষত্ব যে তাঁর ছবিতে ভরপুর বিনোদনের সঙ্গেও সামাজিক বার্তা থাকে। হিরানির আগামী ছবিতেও এসব কিছু থাকবে। জানা গেছে, চিত্রনাট্যের কাজ প্রায় শেষের পথে। এরপর শাহরুখ ও হিরানি একটা বৈঠক করবেন। ইতিমধ্যে লোকেশন দেখার কাজও শুরু হয়ে গেছে। আগামী আগস্টে ছবির শুটিং শুরু হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু লকডাউনের কারণে সব পরিকল্পনা ভেস্তে যায়। জানা গেছে, বছরের শেষের দিকে ছবিটির শুটিং শুরু হতে পারে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0