default-image

ভারতের ছোট পর্দার পরিচিত মুখ রুবিনা দিলেক। ‘ছোটি বহু’, ‘ছোটি বহু টু’, ‘কাসাম সে’, ‘সাস বিনা সাসুরাল’, ‘পবিত্র রিশতা’সহ অনেক ধারাবাহিকে দেখা গেছে তাঁকে। ‘শক্তি’ ধারাবাহিকের জন্য ২০১৬ সালে ইন্ডিয়ান টেলিভিশন একাডেমি অ্যাওয়ার্ডে ‘সেরা অভিনেত্রী (নাটক)’ বিভাগের পুরস্কার পেয়েছেন তিনি। ২০২০ সালে তাঁর অভিনীত স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘বারেলি কী বেটি: দ্য ইয়ংগেস্ট সারভাইভার’ দারুণ প্রশংসিত হয়েছে। সম্প্রতি বেশ কয়েক মাস তিনি আলোচনায়। ফিটনেস আইকন হিসেবেও নামডাক আছে তাঁর। তিনি আলোচিত-সমালোচিত রিয়েলিটি শো বিগ বসের ১৪তম আসরের প্রতিযোগী হিসেবে।

বিজ্ঞাপন
default-image

রুবিনা বিগ বসের শুরু থেকেই আলোচনায় আছেন স্বামী অভিনব শুক্লার সঙ্গে অংশ নিয়ে। তাঁদের জুটিকে শুরু থেকেই ভক্তরা দারুণ পছন্দ করতেন। তা ভিন্ন মাত্রা পায় বিগ বসে। অনলাইনের দুনিয়ায় ক্রমাগত রুবিনা আর অভিনব দারুণ জুটি হয়ে আলোচনায় থেকেছেন। তাঁদের প্রশংসায় পঞ্চমুখ নেটিজেনরা। তখনই হঠাৎ যেন বোমা ফাটান রুবিনা। জানান, তাঁরা বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। নিজেদের সম্পর্ককে আরেকটা সুযোগ দিতেই বিগ বসে এসেছেন। এরপর আরেক প্রতিযোগী জেসমিন ভাসিনের সঙ্গে বন্ধুত্ব আর শত্রুতা নিয়ে ক্রমাগত আলোচনায় থেকেছেন। আলোচনায় থেকেছেন আরেক প্রতিযোগী রাখি সাওয়ান্তের সঙ্গে ঝগড়া আর তাঁর গায়ে পানি ঢেলে দেওয়া নিয়েও।

উপস্থাপক সালমান খানের সঙ্গেও একাধিকবার কথা–কাটাকাটি হয়েছে তাঁর। সর্বশেষ আলোচনায় এসেছেন নিজের আত্মহত্যার প্রবণতা নিয়ে কথা বলে। বিগ বসের বাড়িতে সালমান খানকে তিনি বলেন, ‘আট বছর আগে আমি এ রকম ছিলাম। অতিরিক্ত বদমেজাজি। মা–বাবার সঙ্গে আমার সম্পর্ক বিশেষ ভালো ছিল না। আমার ভেতর আত্মহত্যার প্রবণতা ছিল।’

default-image

হু হু করে বাড়ছে রুবিনার ভক্তসংখ্যা। ইনস্টাগ্রামে তাঁর ‘ফলোয়ার’ ছাড়িয়ে গেছে ৩২ লাখ। ইউটিউবেও রুবিনা দিলেকের চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার ৩ লাখ ৮৬ হাজারের বেশি। আর এই মুহূর্তে তাঁকে বিগ বসে জয়ীর মুকুটের অন্যতম দাবিদার মনে করা হচ্ছে। একাধিক অনলাইন জরিপ বলছে সে কথাই।

বিজ্ঞাপন
বলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন