স্বজনপ্রীতি ছিল, আছে আর থাকবে

বিজ্ঞাপন
default-image

সুশান্ত সিং রাজপুতের ‘আত্মহত্যা’র ঘটনা পর আবার ‘স্বজন পোষণ’ নীতি নতুন করে মাথা চাড়া দিয়ে উঠেছে। আর তারপর থেকে বলিডের তারকা সন্তানদের রীতিমতো তুলাধোনা করছে নেটিজেনরা। শ্রীদেবী কন্যা জাহ্নবী কাপুরও এই আক্রমণের শিকার। তাঁর অভিনীত 'গুঞ্জন স্যাক্সেনা: দ্য কার্গিল গার্ল' ছবির ট্রেলার মুক্তির পর থেকে ট্রলকারীরা নানা নেতিবাচক মন্তব্য ছুড়ে দিচ্ছেন জাহ্নবীর উদ্দেশে। এমনকি অনেকে এই ছবিটি বয়কট করার জন্যও আওয়াজ তুলেছে।

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে 'গুঞ্জন স্যাক্সেনা: দ্য কার্গিল গার্ল' ছবির ট্রেলার। ভারতীয় বিমান সেনার প্রথম নারী পাইলট গুঞ্জন স্যাক্সেনার জীবনের ওপর নির্মিত এই ছবিটি। ছবিতে জাহ্নবী কাপুরকে দেখা যাবে গুঞ্জন স্যাক্সেনার ভূমিকায়। পর্দায় তিনি নিজেকে গুঞ্জন হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে প্রচুর ঘাম ঝরিয়েছেন। এমনকি বিমান চালানোর প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। আর ট্রেলার দেখেই বোঝা যাচ্ছে জাহ্নবী তাঁর অভিনীত চরিত্রের সঙ্গে কতটা একাত্ম হয়েছেন। তবে অনেকে 'স্বজন পোষণ' নীতি নিয়ে রীতিমতো কটাক্ষ করছে জাহ্নবীকে। ট্রেলার মুক্তির পর থেকে নানা কটু মন্তব্য করছে ট্রলকারীরা। জাহ্নবীর এই ছবিটি বয়কট করারও হুমকি আসছে ক্রমাগত।

default-image

এদিকে স্বজনপ্রীতি নিয়ে জাহ্নবী বলেন, ‘স্বজনপ্রীতি নিয়ে না জানার তো কিছু নেই। এটা খুবই স্বাভাবিক, ছিল, আছে আর থাকবে। এটা সত্যি যে আমি সহজে সুযোগ পেয়েছি। অনেকে এত সহজে সুযোগ পায় না। আমি অন্যদের তুলনায় অনেক সহজে এখানে পৌঁছেছি। তবে আমাকে টিকে থাকতে হবে নিজের যোগ্যতায়। স্বজনপ্রীতি বলে মানুষ প্রথম একটা বা দুটো ছবি পায়, কিন্তু ক্যারিয়ার গড়তে পারে না। আগামী সফর আমার নিজেরই। আমি এখনই আমার আসল সফর শুরু করেছি। আমার নিজের রাস্তা আমি নিজেই তৈরি করে হাঁটছি।’ জাহ্নবী আরও বলেন, ‘আমি দ্বিতীয় ছবি পেয়েছি, কারণ প্রথম ছবিটা চলেছে। প্রযোজক প্রথম ছবি দেখে আমার ওপর ভরসা করেছে। আর প্রথম ছবি "স্বজনপ্রীতির খাতিরে পাওয়ার পর" আমি প্রমাণ করেছি যে আমি ওই ছবির যোগ্য ছিলাম। আমি ক্ষমা চাইবার কোনো কারণ দেখছি না। ক্ষমা চাইবার মতো আমি কিছু করিনি।’

default-image

শরণ শর্মা পরিচালিত 'গুঞ্জন স্যাক্সেনা' ছবিতে জাহ্নবী ছাড়া পঙ্কজ ত্রিপাঠী, অঙ্গদ বেদিসহ আরও অনেকে আছেন। ছবিটি ১২ আগস্ট নেটফ্লিক্সে আসতে চলেছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন