বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

‘দেশে কিন্তু আইনকানুন আছে’ পার্শ্বচরিত্রের অভিনেতার এ ডায়ালগের পরই ফজলুর রহমান বাবুর মুখে শোনা যায়, ‘আইনের ফাঁকও আছে।’ বোঝাই যাচ্ছে, সিনেমায় আবার খল চরিত্রে হাজির হচ্ছেন এ অভিনেতা। বাবু বলেন, ‘এটাকে খল চরিত্র বলব না। তবে চরিত্রটিতে রহস্য আছে। অভিনয়, মেকিং স্টাইল একদমই আলাদা। ভিন্ন স্বাদের একটি সিনেমা। দক্ষতার সঙ্গে মীর সাব্বির পর্দায় তুলে ধরেছেন। দর্শক সিনেমাটি দেখলেই আমাদের পরিশ্রম সার্থক।’

default-image

এই সময় ফজলুর রহমান বাবু আক্ষেপ করে বলেন, ‘আমাদের ইন্ডাস্ট্রিতে যাঁরা কাজ করেন, তাঁরাই সিনেমা দেখেন না। আমরা খুব বেদনার সঙ্গে লক্ষ করছি, অনেকেই মিডিয়ায় কাজ করেন কিন্তু একদমই সিনেমা দেখেন না। তাঁরা শুধু আলোচনায় যুক্ত থাকেন। অনেকেই সিনেমা না দেখেই সমালোচনা করেন—বাজে ছবি, কিছুই হয়নি। সবার ছবি দেখা উচিত। ছবি ভালো–খারাপ হবেই। কোনো শিল্পীই সমালোচনার ঊর্ধ্বে নন। আমরা যত মানুষ ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ করি, তাঁরা সবাই হলে সিনেমা দেখলে ঢাকার সিনেপ্লেক্স প্রতিদিন হাউসফুল যাবে।’

default-image

অভিনেতা মীর সাব্বিরের প্রথম পরিচালনা ‘রাত জাগা ফুল’ সিনেমাটি। তিনি বলেন, ‘আমি শুধু দর্শকদের বলব, আপনারা আমাদের সিনেমাটি দেখুন। সিনেমাটি আমাদের মাটির গল্প। বাংলাদেশের মানুষের সবার গল্পের সিনেমা। গল্পে দর্শক নিজেকে খুঁজে পাবেন। আমাদের প্রকাশিত ট্রেলার নিয়ে বলব, এটা সকালের সূর্য। এটা ভালো হলেই আমরা সার্থক। এটুকু বলব, সিনেমায় আরও অনেক চমক আছে।’ সরকারি অনুদানের সিনেমাটি ৩১ ডিসেম্বর সারা দেশের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাবে। সিনেমায় বিভিন্ন চরিত্রে আরও অভিনয় করেছেন মীর সাব্বির, জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী, দিলারা জামান, আবুল হায়াত, শর্মিলী আহমেদ, ফজলুর রহমান বাবু, ডা. এজাজুল ইসলাম, নাজনীন চুমকি, রাশেদ মামুন অপু, জয়রাজ, আবু হোরায়রা তানভীর প্রমুখ।

ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন