default-image

তরুণ অভিনেত্রী অধরা খান বিবাহিত নাকি একা? বিনোদন অঙ্গনের অনেকেই বলেন, তিনি বিবাহিত। কিন্তু কোনোভাবেই সেটা প্রকাশ পায় না। জানতে চাইলে অধরা খান স্বীকার করেন, তিনি বিবাহিত। একজন নয়, দুজন স্বামী তাঁর। যদিও সেটা সিনেমার বিয়ে। সেসব বিয়ের আগেও ঘটেছিল আরেক ঘটনা। শুটিং শুরু হয়েছিল, ছবি মুক্তি পায়নি। শুটিং শুরু করার পাঁচ বছর পর মুক্তি পাচ্ছে অধরা অভিনীত ছবি ‘পাগলের মতো ভালোবাসি’। ১৯ ফেব্রুয়ারি দেশজুড়ে প্রায় ৪০টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে শাহিন সুমন পরিচালিত এ ছবি।

বিজ্ঞাপন
default-image

‘পাগলের মতো ভালোবাসি’ ছবির মুক্তি উপলক্ষে নতুন ছবি ‘গিভ অ্যান্ড টেক’-এর দ্বিতীয় ধাপের কাজ পিছিয়ে দিয়েছেন অধরা। সময়টা ছবির প্রচার-প্রচারণা করে কাটাতে চান তিনি। অধরা বলেন, ‘১৯ ফেব্রুয়ারি “গিভ অ্যান্ড টেক” ছবির দ্বিতীয় ধাপের কাজ শুরু হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু “পাগলের মতো ভালোবাসি” ছবির মুক্তি উপলক্ষে শুটিং পিছিয়ে দিয়েছি। কারণ, এটি আমার প্রথম শুটিং করা ছবি। ছবিটি নিয়ে আমার উন্মাদনা অন্য রকম। ছবিটি নিয়ে ভালো প্রচারণায় থাকতে চাই।’

প্রথম শুটিং করা ছবি মুক্তির আগেই মুক্তি পায় অধরা অভিনীত দুটি ছবি ‘নায়ক’ ও ‘মাতাল’। অন্যদিকে গত বছর থেকেই শোনা যাচ্ছিল, কলকাতার একটি বড় বাজেটের ছবিতে অভিনয় করবেন তিনি। গত বছরের জুন থেকে সেই ছবির শুটিং শুরু করার কথা ছিল। এ ব্যাপারে অধরা খান বলেন, ‘এখনই এ বিষয়ে সবকিছু খোলাসা করতে চাই না। এতটুকুই বলি, একজন বড় পরিচালকের বড় বাজেটের কাজ এটি। কাজটির জন্য কলকাতায় একটি ফটোসেশনও হয়েছিল আমার। গত বছরের জুনে শুটিং শুরু হওয়ার কথা ছিল। কোভিড-১৯-এর কারণে কাজ পিছিয়েছে। আশা করছি, এ বছরের জুলাই-আগস্ট নাগাদ কাজ শুরু হতে পারে।’ বিয়ের প্রসঙ্গে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘দুটি সিনেমায় আমার বিয়ে হয়েছে। এক স্বামীর নাম রোশান, আরেক স্বামীর নাম বাপ্পী।’

default-image

এদিকে দীর্ঘ পাঁচ বছর পর ছবির মুক্তি প্রসঙ্গে পরিচালক শাহিন সুমন বলেন, ‘শুটিং করতে করতে বাজেট-সংকটে পড়তে হয়। এ কারণে সঠিক সময়ে শুটিং শেষ করা যায়নি। তাই মুক্তি দিতে এত দেরি হলো। তবে সেন্সরের পরপরই ২০২০ সালের প্রথম ভাগে মুক্তির ইচ্ছা ছিল। কিন্তু করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ায় সেটা সম্ভব হয়নি।’

‘পাগলের মতো ভালোবাসি’ ছবিতে আরও অভিনয় করেছেন আসিফ নূর, সুমিত সেনগুপ্ত, সাদেক বাচ্চু, জয়রাজ, রেবেকা, কমল পাটেকার প্রমুখ। ছবির শুটিং হয়েছিল ২০১৬ সালের ৩১ জানুয়ারি। গত বছরের মার্চে সেন্সর ছাড়পত্র পায় ছবিটি।

বিজ্ঞাপন
ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন