জন্মদিনের প্রথম প্রহরে দেশের গুণী নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকী নিজেই ফেসবুকে একটা পোস্ট দিলেন। তবে সে পোস্ট নিজের জন্মদিন জানানোর মোড়কে কাছের মানুষদের ধন্যবাদ আর কৃতজ্ঞতা জানানোর জন্য। ফারুকী লিখেছেন, ‘জীবন কঠিন। কেবল ভালোবাসাই এই কঠিন দুর্বহ জীবনটাকে আনন্দময় করে তোলে। আপনাদের ভালোবাসা পেয়ে আমি সৌভাগ্যবান।’

default-image

সুস্থ আর আনন্দে থাকার জন্য প্রার্থনা চেয়ে আরও জানিয়েছেন, জীবনসঙ্গী ও অভিনয়শিল্পী নুসরাত ইমরোজ তিশা ঘরেই বানিয়েছেন কেক। তিশার সারপ্রাইজের কথা নাকি গোপনে জেনে গেছেন চুপি চুপি, সে কথাও জানাতে ভুললেন না। তবে নিজে যে জেনে গেছেন, মজা করে সে কথা আবার জানাতে নিষেধ করলেন তিশাকে। যেন তিশা ফেসবুকে নেই! এদিকে তিশা অল্প কথায় লিখেছেন, ‘মোস্তফা সরয়ার ফারুকী, তোমাকে জন্মদিনের অনেক অনেক শুভেচ্ছা।’

default-image
বিজ্ঞাপন

ফারুকীর মতো নির্মাতাদের নাকি বয়স বাড়ে না। কেবল অভিজ্ঞতা জড়ো হয়ে চুলের রং বদলায় খানিকটা। তাই কততম জন্মদিন, এ প্রশ্ন এখানে অবান্তর। ফারুকীর পোস্টের নিচে মজা করে অভিনয়শিল্পী বন্যা মির্জা জানিয়েছেন জন্মদিনের শুভেচ্ছা, ‘৬৫ বছর বেঁচে থাকার একটা আনন্দ আছে। আরও ৬৫ বছর বেঁচে থাকেন।’
কিন্তু বয়স নিয়ে এমন মজা মানতে পারেননি ফারুকীর ভাই বেরাদাররা। একজন বন্যা মির্জাকে ট্যাগ করে জানিয়ে দিয়েছেন, তারুণ্য চলছে ফারুকীর। লিখেছেন, ‘বস (ফারুকী) তো টিনএজার। চিরসবুজ।’ ফারুকীর পোস্টের নিচে নাসির উদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু, নুরুল আলম আতিক, মেজবাউর রহমান সুমন, চঞ্চল চৌধুরী, তানিয়া আহমেদ, নাবিলা, ওয়াহিদ ইবনে রেজা, শ্রাবস্তী দত্ত তিন্নি, ইপশিতা শবনম শ্রাবন্তী, ইমন চৌধুরী, অনম বিশ্বাসসহ প্রায় কয়েক শত মানুষ জানিয়েছেন জন্মদিনের শুভেচ্ছা।

default-image

এই শহরে ফারুকীর ভাই বেরাদারের সংখ্যা হাতে গুনে শেষ করা কঠিন। তাঁদেরই একজন আহমেদ হাসান সানি। জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়ে তিনি লিখেছেন, ‘আজকে ভাইয়ের জন্মদিন। এই শহরে এই দেশের অসংখ্য তরুণদের তিনি স্বপ্ন দেখিয়েছেন। তেমনি দেখিয়েছেন, এই সমাজের সামনে দর্পণ ধরলে এই সমাজটা কেমন রেগে যায়! শুভ জন্মদিন ফারুকী ভাই। আমরা এখনো স্বপ্ন জমা দিই নাই।’ ইভান মনোয়ার আবার আবেগে লিখেছেন, 'আপনি এই শহরের জঁ লুক গদার। আপনার কোনো আত্মসংকট নেই। আপনি একটা ইনস্টিটিউট।'

default-image

চিরকুট ব্যান্ডের ভোকাল শারমিন সুলতানা সুমী পুরোনো একটি ছবি পোস্ট করেছেন। সেখানে তিনি ছাড়া আছেন ফারুকী ও অর্ণব। ওই পোস্টের নিচে অনেকেই লিখেছে, ‘এক ফ্রেমে তিন প্রিয় মুখ।’ এই ছবির সঙ্গে সুমী জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়ে লিখেছেন, ‘আপনার সৃজনশীলতার শৈল্পিক মহাকাশযাত্রা আরও দাপুটে হোক। এভাবেই হাজার তরুণের সামনে চলার অনুপ্রেরণা হয়ে সুস্থভাবে বেঁচে থাকেন বহুদিন। অর্ণব ভাইয়েরও শুভেচ্ছা নিয়ে নিয়েন।’

default-image

চঞ্চল চৌধুরীও ফারুকীর জন্মদিনে ফেসবুকে শুভেচ্ছা না জানিয়ে পারেননি। তিনিও বয়সের প্রসঙ্গ টেনে একটু মজা করে তবেই জন্মদিনের লেখা সম্পূর্ণ করেছেন। লিখেছেন, 'ভদ্রলোকের নাম মোস্তফা সরয়ার ফারুকী। আমার বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ কাজের নির্মাতা তিনি। তিনি আমার গুরুজন। কিন্তু তিনি এখন এই কথাটা মানতে নারাজ। ইদানিং তিনি নানান ভাবে প্রমাণ করার চেষ্টা করছেন,আমি নাকি তাঁর চেয়ে মুরুব্বী। বলেন, এইটা কোন বিশ্বাস যোগ্য কথা?আজ আবার তাঁর জন্মদিন। কত তম, সেটা না বলি...শুধু কৃতজ্ঞতা আর ভালোবাসা জানাই। সুন্দর এবং ভালো থাকুন বড় ভাই।'

default-image

পরিচালক রেদওয়ান রনি লিখেছেন, ‘আমাদের একটাই দল, সরয়ার ভাইয়ের দল, ছবিয়ালের দল। তারুণ্যের অজস্র স্বপ্নের টগবগের গল্পগুলো ফ্রেমে আঁকার কর্মযজ্ঞে নিজেকে উজাড় করে দেওয়ার নাম মোস্তফা সরয়ার ফারুকী, নিজের সেসব গল্প নিয়ে পৃথিবী জয়ের পথে এগিয়ে চলার নামই মোস্তফা সরয়ার ফারুকী।’ এই নির্মাতার বয়স বাড়ার ঝামেলা এড়াতে এই পোস্টে রনি জানিয়েছেন, কোভিড শুরু হওয়ার আগে ২০২০ সালের শুরুতে ফারুকীর বয়স নাকি ছিল ২৪! যে ছবি জুড়ে দিয়েছেন, সেটা নাকি সেই সময়ে তোলা ছবি।

বিজ্ঞাপন
ঢালিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন