বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আনন জামান রচিত এই নাটকের পরিকল্পনা করেছেন এবং নির্দেশনা দিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার অ্যান্ড পারফরম্যান্স স্টাডিজ বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আশিক রহমান লিয়ন। নির্দেশক বলেন, ‘বাংলাদেশের স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবার হত্যার মর্মন্তুদ ঘটনা উপজীব্য করে নাটক “শ্রাবণ ট্র্যাজেডি”। এ নাটকের শুরুতেই আমরা এই ভাবনায় স্থিত হই, বঙ্গবন্ধু কোনো দলের নন, কোনো গোষ্ঠীর নন। তিনি সমগ্র জাতির, পুরো দুনিয়ার স্বাধীনতাকামী মানুষের আকাঙ্ক্ষার প্রতীক। এমনই এক মহিরুহ ব্যক্তিত্বের জীবন নিয়ে লেখা নাটকের নির্দেশনা দিতে পারা আমার জন্য সৌভাগ্যের বলে মনে করি। কাজটি তাই একদিকে আমার জন্য আনন্দের, অন্যদিকে আমার নিজের জন্য ইতিহাসের দায় পূরণের কর্তব্যও বটে।’

default-image

নাট্যকার আনন জামান বলেন, ‘“শ্রাবণ ট্র্যাজেডি” নাটকে সত্য বলার জন্য বঙ্গবন্ধুর খুনিদের ধূসর অতীত থেকে তাড়িয়ে আনা হয়েছে বর্তমানের রঙ্গমঞ্চে। কোনো ধরনের রাজনৈতিক অভিসন্ধি সিদ্ধির জন্য নয়, ইতিহাস পাঠের জটিল আবর্ত থেকে নিরপেক্ষ সত্য রচনা করার চেষ্টা করেছি।’

মহাকাল নাট্য সম্প্রদায়ের সভাপতি মীর জাহিদ হাসান প্রথম আলোকে বলেন, ‘আমাদের এই নাটক অনেক গবেষণা ও পরিকল্পনার ফসল। দীর্ঘ নয় মাস গবেষণালব্ধ এ পাণ্ডুলিপিতে জাতির জনককে হত্যার পরিকল্পনাকারী রাজনৈতিক ও সামরিক বেনিয়াদের অংশগ্রহণ ও কার্যকারণ উন্মোচিত হয়েছে, যা প্রজন্ম থেকে প্রজন্মের জানার অধিকার রয়েছে।’

default-image

নাটকটিতে অভিনয় করছেন কবির আহামেদ, ফারুক আহমেদ, মো. শাহনেওয়াজ, মনিরুল আলম, পলি বিশ্বাস, সামিউল জীবন, শিবলী সরকার, শাহরিয়ার হোসেন, তারেকেশ্বর তারোক, আহাদুজ্জামান কলিন্স, সুমাইয়া তাইয়ুম, আরাফাত আশরাফ, স্বপ্নিল, কানিজ ফাতেমা, কাজী তারিফ, রেদোয়ান হোসেন, নূর আকতার, রিফাত হোসেন, তোফাজ্জল ফয়সাল, রিয়াদ আকাশ, জাহিদ হোসেন, নাসিম রানা, সোহেল আহমেদ, ইকবাল চৌধুরী ও মীর জাহিদ হাসান।

নাটক থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন