বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আপনার কি কখনো মনে হয়েছিল, এতটা সময় দিয়ে ভুল করছেন?

মোটেই নয়। আমি বুঝতে পেরেছিলাম, এই সিনেমা কোথাও আমাকে নিয়ে যাবে। তবে এত বড় জায়গায় পৌঁছে দেবে, ভাবিনি। ডেফিনেটলি এ ধরনের সিনেমা যে আমার জীবনে হয়নি, শুটিংয়ের সময়ই এটা আমি বুঝে গেছি। প্রমাণ তো পেলামও। কান চলচ্চিত্র উৎসবে ফরাসি যেসব দর্শক ছিলেন, তাঁরা কিন্তু ইংরেজিও ঠিকমতো বোঝেন না, সাবটাইটেলে বাংলাভাষী একটা সিনেমা দেখেছেন। ওই সিনেমা একবার দেখেই বাইরের দেশের দর্শক ও সমালোচকেরা রিলেট করতে পেরেছেন। পুরো কৃতিত্ব তো সাদেরই। আমার পেছনে যে পরিশ্রম সে করেছে, পর্দায় তা দেখা গেছে। ভারতের দিল্লি, মুম্বাই বেজড যেসব সাংবাদিক আমার সঙ্গে ছবিটি দেখছেন, সবাই এই কথাই বলেছেন, এ ধরনের অ্যাক্টিং কীভাবে সম্ভব! আমাদের দেশে যেহেতু ছবিটি এখনো কেউ দেখেনি, তাই মানুষ কিন্তু জানে না আসলে হইছেটা কী।

default-image

‘রেহানা’ নিয়ে অর্জনের খবরগুলো আগেভাগেই পান। চেপে রাখেন কীভাবে?

(হাসি) এই অভ্যাস আসলে আমার হয়ে গেছে। বাই নেচার আমি চাপা। আমি মনে করি, যেকোনো জিনিস শতভাগ সঠিক না হওয়া পর্যন্ত ওটা নিয়ে আলোচনা–সমালোচনা ঠিক নয়। এটা একান্তই আমার পারসেপশন।

অ্যাপসায় কি আপনারা যাচ্ছেন?

না, যেতে পারছি না। কারণ, আমাদের সিনেমা রেহানা মরিয়ম নূর বাংলাদেশে নভেম্বরে মুক্তি পাবে। আর ১১ নভেম্বর সম্ভবত অ্যাপসায় বিজয়ীর নাম ঘোষিত হবে। দেশের দর্শকের সঙ্গে বসে ছবিটি উপভোগ করতে চাই। আমি তো বুসান আর হংকংয়েও যেতে পারিনি।

default-image

আচ্ছা সবাই যে বলেছে, গ্ল্যামার নষ্ট হয়ে যাচ্ছে, বয়স বেড়ে যাচ্ছে, বিয়েও করতেছ না, জামাই পাবা না—এসব শুনে কেমন লাগত?

জীবনের এমন একটা পর্যায়ে এসে গেছি, খুব বেশি একটা গায়ে লাগার সুযোগ নেই। এত বেশি এক্সট্রিম ট্রমা, কষ্ট পার করে এসেছি, খুবই কাছের মানুষদের মাধ্যমে নোংরাভাবে সবার কাছে এক্সপোজড হয়েছি, অপমানিত হয়েছি, নিগৃহীত হয়েছি; তাই এসব শুনলে আমার হাসি পায়। আমার চিন্তাচেতনা, মনন ও দর্শন অনেক চেঞ্জ করেছি। তাই এখন কে কী বলল, কে কী বলল না, কার ভালো লাগল, কার লাগল না, অন্যের সিদ্ধান্তে যে চলব না, এই সিদ্ধান্ত কিন্তু নিয়ে ফেলেছি। এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর আমার নিজেকে ভীষণ মুক্ত লাগে। অন্যকে ভালো লাগানোই আসলে আমার একমাত্র কাজ নয়, আমার নিজেকে আগে ভালো রাখতে হবে। এরপর আমার পরিবার, সমাজ ও দেশের কথা ভাবব। তাই বলে সমাজের ছকে বাঁধা হয়ে, আদর্শ নারী হতে গিয়ে, অন্যের মন রক্ষা করতে গিয়ে দিনের পর দিন আমাকে নিগৃহীত করব এবং অত্যাচার–অনাচারের শিকার হব; এটা হবে না।

বিয়ে নিয়ে আপনার কোনো চিন্তাভাবনা কি আছে?

আপাতত বিয়ে নিয়ে আমার কোনো চিন্তা নেই। আমরা কখনো বলতেও পারি না, জীবনে কী হবে। জীবন ভীষণ অনিশ্চিত।

default-image

কিন্তু প্রেমের সম্পর্কেও কি জড়াননি বা কেউ প্রেমের প্রস্তাব দেয়নি?

আমাকে কেউ প্রেমের প্রস্তাব দেয় না। আমাকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে মানুষ অস্থির করে ফেলছে, এটা পুরোপুরি ভুল ধারণা। আমাকে মানুষ কত ভয় পায়, আপনার কোনো ধারণাও নেই। আমি একদমই সেই পুতু পুতু লক্ষ্মী মেয়েটাও নই। আমাকে ডিল করা এত সহজও নয়। আমি খুবই অদ্ভুত।

নতুন চলচ্চিত্রের খবর কবে পাওয়া যাবে?

সেটা তো অবশ্যই সময় হলে আমি জানাব। এখনো জানানোর মতো কিছু হয়নি।

আলাপন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন