৯৩তম অস্কার আসর বসছে আগামীকাল ভোরে
৯৩তম অস্কার আসর বসছে আগামীকাল ভোরেকোলাজ

রাত পোহালেই বসছে ৯৩তম একাডেমি অ্যাওয়ার্ডসের আসর। এবার বেশ কয়েকটি ছবি আছে সেরা ছবির দৌড়ে। ‘নোম্যাডল্যান্ড’কে এগিয়ে রাখছে অনেকেই। ইতিমধ্যে ছবিটি অন্যান্য মঞ্চ থেকে ছিনিয়ে এনেছে বেশ কিছু পুরস্কার।
করোনার আতঙ্ক বিরাজমান। তার মধ্যেই আয়োজিত হচ্ছে এই অনুষ্ঠান। ঘরে বসে কীভাবে এবং কোথায় দেখা যাবে এই জমকালো আসর তা জানাতেই এই লেখা।

কোথায় হচ্ছে?
এবার অস্কার অনুষ্ঠানের জন্য দুটি ভেন্যু বেছে নেওয়া হয়েছে। একটি লস অ্যাঞ্জেলেসের ইউনিয়ন স্টেশন এবং আরেকটি ডলবি থিয়েটার। ২০০১ সাল থেকে টানা প্রায় দুই দশক ধরে ডলবি থিয়েটারেই আয়োজন করা হচ্ছে অস্কার। এবারে করোনার কারণে দুটি ভেন্যুতে এ আয়োজন করা হয়েছে।

default-image
বিজ্ঞাপন

যেখানে দেখা যাবে অস্কার ২০২১
অস্কার আনুষ্ঠানিকভাবে দেখানো হবে এবিসি চ্যানেলে। তবে এবিসি চ্যানেল অনেক জায়গা থেকে দেখার সুযোগ না–ও থাকতে পারে। সে ক্ষেত্রে স্টার মুভিজ বা স্টার ওয়ার্ল্ডেও দেখতে পারেন। আর লাইভ স্ট্রিমিং দেখা যাবে অস্কারের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট এবং সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ওটিটি প্ল্যাটফর্ম ডিজনি প্লাস হটস্টারের গ্রাহক হলে দেখা যাবে সেখানেও।

default-image

কখন দেখাবে
যুক্তরাষ্ট্রে রোববার রাতে বসছে অস্কারের আসর। স্থানীয় সময় অনুযায়ী রাত আটটায়। আর বাংলাদেশ সময়ে সোমবার ভোর ছয়টায় দেখা যাবে অনুষ্ঠান, চলবে নয়টা পর্যন্ত। এ ছাড়া সোমবার রাত নয়টায় স্টার মুভিজ অস্কার অনুষ্ঠানটি পুনঃপ্রচার করবে।
এবারের অস্কার মনোনয়ন ঘোষণায় ছিলেন বলিউড ও হলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও তাঁর স্বামী সংগীতশিল্পী নিক জোনাস। যুক্তরাজ্যের লন্ডন আর ফ্রান্সের প্যারিসেও এবার বসছে অস্কার আসর। সেখান থেকে অংশ নেওয়া যাবে অস্কারে। তবে আয়োজকেরা মনোনয়নপ্রাপ্ত ব্যক্তিদের যুক্তরাষ্ট্র থেকে অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়াকেই অনুপ্রাণিত করছেন।

default-image

এবারেও অস্কারে কোনো উপস্থাপক থাকছেন না। তবে গত বছর অভিনয় ও পরিচালনায় যাঁদের হাতে উঠেছে অস্কার, তাঁদের অনেককেই দেখা যাবে বিজয়ীয় নাম ঘোষণা করতে। মঞ্চে থাকবেন রেনে জেলওয়েগার, হোয়াকিন ফিনিক্স, লরা ডার্ন, ব্রাড পিট। তা ছাড়া থাকবেন হ্যালি বেরি, বং জুন হো, অ্যাঞ্জেলা বাসেট, ব্রায়ান ক্রান্সটন, হ্যারিসন ফোর্ড, রিতা মরেনো, রিজ উইদারস্পুন, জেনদায়াসহ বিশ্ব চলচ্চিত্রের আরও অনেক পরিচিত মুখ।
এবার সেরা ছবির দৌড়ে আছে ‘জুডাস অ্যান্ড দ্য ব্ল্যাক মোসিয়েহ’, ‘মাঙ্ক’, ‘মিনারি’, ‘নোম্যাডল্যান্ড’, ‘প্রমিজিং ইয়াং ওম্যান’, ‘সাউন্ড অব মেটাল’, ‘দ্য ফাদার’ ও ‘দ্য ট্রায়াল অব শিকাগো সেভেন’ ছবিগুলো।

বিজ্ঞাপন
হলিউড থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন