লকডাউনের সময় চার অভিনেত্রীর কাছে গানটি পাঠানো হয়।
লকডাউনের সময় চার অভিনেত্রীর কাছে গানটি পাঠানো হয়। ছবি:সংগৃহীত

‘এত আলো নিয়ে চাঁদ একলা

এত রং নিয়ে মুখ মেঘলা

কে যেন অন্ধকারে থাকে

শিরীষপাতার ফাঁকে ফাঁকে ও চাঁদ বলে ডাকে...’

শুভাশিস সিনহার কথায় গানটিতে কণ্ঠ দিয়েছেন তাঁরই বোন শর্মিলা সিনহা। বেশ কিছুদিন আগে গানটি প্রকাশিত হয়েছিল। নতুন করে এই গানের ভিডিও চিত্রে অভিনয় করলেন চার স্বনামখ্যাত অভিনেত্রী ত্রপা মজুমদার, তমালিকা কর্মকার, বন্যা মির্জা ও নাজনীন হাসান চুমকী। শুভাশিস সিনহা জানান, লকডাউনের সময় এই চার অভিনেত্রীর কাছে গানটি পাঠানো হয়।

default-image

তাঁরা শর্ত দিয়েছিলেন কেবল গান পছন্দ হলেই তাঁরা গানের সঙ্গে যুক্ত হবেন। গানটি পাঠানোর পর তাঁরা সবাই সেটি পছন্দ করেন এবং নিজেদের অংশের ভিডিও ধারণ করে পাঠান।

বিজ্ঞাপন

তমালিকা কর্মকার সুদূর আমেরিকা থেকে ভিডিও পাঠিয়েছেন। গানের শুরুতে মুখবন্ধ বলেছেন অভিনেত্রী জ্যোতি সিনহা। গানের ভিডিও সম্পাদনা করেছেন উত্তম কুমার সিংহ।

default-image

শুক্রবার সন্ধ্যায় গানের ভিডিওটি অনলাইনে প্রকাশ করা হয়েছে। এ প্রসঙ্গে শুভাশিস সিনহা বলেন, মাস তিনেক আগে, লকডাউনের মধ্যে, যখন সবাইকে একাকিত্ব, নিঃসঙ্গতা চেপে ধরেছিল, তখন কোনো এক পূর্ণিমার রাতে গানটি শুনতে গিয়ে হঠাৎ ভাবনাটি এসেছিল।

default-image

আর ধারণা করা হচ্ছে, এদিন বছরের সবচেয়ে বড় পূর্ণিমার চাঁদ আকাশে দেখা যাবে। সে উপলক্ষে গানটি আজ প্রকাশ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

তাঁর ভাষায়,গানটিতে সব আয়োজনের মধ্যেও মানুষ যে আজ নিঃসঙ্গ, একা সেই কথা বলা হয়েছে। কোনো না কোনোভাবে এটি নারীসত্তার সঙ্গেই বেশি সম্পর্কিত গানটির দৃশ্যাভিব্যক্তি এই দুঃসময়েও পূর্ণিমা রাতে নবতর অনুভব জাগাবে হয়তো-বা।

default-image

প্রসঙ্গত, মণিপুরি থিয়েটারের নাট্যচর্চার সঙ্গে যুক্ত শর্মিলার গানের ভুবনে বিচরণ ছোটবেলা থেকেই। ছায়ানট এবং বিভিন্ন ওস্তাদের কাছে নিয়েছেন গানের তালিম। দীর্ঘদিন ধরে দেশের অন্যতম নাট্য সংগঠন মণিপুরি থিয়েটারের সংগীত নির্দেশক ও সংগীতশিল্পী হিসেবে কাজ করছেন তিনি।

default-image
বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0