default-image

দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ অর্থহীন ব্যান্ডের সুমন। তিনি ‘বেজবাবা’ সুমন নামেই পরিচিত। কয়েক বছর ধরে ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করছেন তিনি। তিন বছর আগে ক্যানসারের চিকিৎসা শেষে হাসপাতাল থেকে ফেরার পথে মারাত্মক দুর্ঘটনার কবলে পড়েছিলেন এই গায়ক। তখন থেকে ক্যানসারের সঙ্গে যোগ হয়েছে নতুন সমস্যা। চিকিৎসার জন্য তাঁর জার্মানি যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনার কারণে মিলছে না ভিসা। এদিকে তাঁর শারীরিক জটিলতা ক্রমশ বাড়ছে। সম্প্রতি ফেসবুকে দোয়া চেয়ে একটি পোস্ট দিয়েছেন এই ব্যান্ডতারকা।

default-image

চিকিৎসার জন্য গত বছর জার্মানি যাওয়ার কথা থাকলেও এখনো যেতে পারেননি। করোনার কারণে ভিসা জটিলতায় দেশের বাইরে যেতে পারছেন না তিনি। এদিকে দিন দিন তাঁর অসুস্থতা বাড়ছে। গতকাল নিজেই ফেসবুকে বেজবাবা সুমন লিখেছেন, ‘সবাই আমার জন্য দোয়া এবং আশীর্বাদ করবেন। আমার শারীরিক অবস্থা ভালো না। আমি যেন দ্রুত আবারও সুস্থ হয়ে আপনাদের মাঝে ফিরে আসতে পারি।’ স্ট্যাটাসটির সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করেছেন তিনি। সেই ছবিতে দেখা গেছে মাথাভর্তি ঝাঁকড়া চুল। বড় হয়ে গেছে দাঁড়ি। ছবির ক্যাপশনে তিনি আরও লিখেছেন, ‘এটা আমার বর্তমান অবস্থা। কোয়ারেন্টিন জীবন।’

বিজ্ঞাপন
default-image

তাঁর স্ট্যাটাসে প্রায় শতাধিক অভিনয়শিল্পী, নির্মাতা ও কণ্ঠশিল্পী মন্তব্য করেছেন। তাঁরা সবাই সুস্থতা কামনা করেছেন এই গায়কের। অভিনেত্রী সোহানা সাবা লিখেছেন, ‘আশা করি, আপনি খুব দ্রুত সুস্থ হয়ে আমাদের মধ্যে ফিরে আসবেন। ঘরবন্দী সময়ের এই ছবিতে আপনাকে খুবই মানিয়েছে।’ অভিনেতা ইরেশ যাকের লিখেছেন, ‘ভাই ভালোবাসা এবং দোয়া রইল।’ অভিনেতা ইমতিয়াজ বর্ষণ লিখেছেন, ‘ভাই সুস্থ হয়ে আবার আমাদের মধ্যে ফিরে আসুন।’ নির্মাতা আফজাল হোসেন মুন্না লিখেছেন, ‘দ্রুত সুস্থ হন ভাই। সংগীত অঙ্গনে আপনাকে খুবই দরকার।’ সংগীতশিল্পী আরমীন মুসাও তাঁর সুস্থতা কামনা করেছেন।

default-image

বেশ কয়েক বছর ধরে বেজবাবা সুমনের ক্যানসারের চিকিৎসা চলছে। সর্বশেষ ২০১৭ সালে সার্জারি করার পর ব্যাংককের একটি হাসপাতাল থেকে ফিরছিলেন এই গায়ক। এমন সময় হঠাৎ তাঁকে একটি গাড়ি ধাক্কা দেয়। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। প্রায় ১১ ঘণ্টা ধরে ৯টি সার্জারি করা হয়। ব্যাংককের ওই দুর্ঘটনায় সুমনের স্পাইনাল কর্ডের ক্ষতি হয়। সেই থেকেই কিছুদিন পরপর স্পাইনাল কর্ডের ব্যথাটা বাড়ত। এখন ব্যথাটা নিয়মিত হচ্ছে। বেজবাবা সুমনের আগের কিছু সমস্যা থাকলেও সেগুলো গুরুতর নয়। সেগুলোর জন্যও তিনি নিয়মিত চিকিৎসা নিচ্ছেন। এখন দ্রুত তাঁর চিকিৎসা দরকার।

default-image

অর্থহীন ব্যান্ডের ম্যানেজার রাজু জানান, সুমনের শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে বেশি খারাপ। তাঁর স্পাইনাল কর্ডের ব্যথা অনেক বেড়েছে। প্রায়ই অসুস্থ হয়ে পড়েন। জরুরি ভিত্তিতে এর চিকিৎসা দরকার। এ কারণে তাঁকে দ্রুত জার্মানিতে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে। তিনি বলেন, ‘তাঁর পরিবার থেকে এখনো জার্মানিতে যাওয়ার জন্য চেষ্টা চালানো হচ্ছে। কিন্তু অসুস্থতা বেড়ে যাওয়ায় পরিবারের সদস্যরা ভেঙে পড়ছেন, চিন্তা করছেন। আপাতত দেশের কয়েকজন ডাক্তারের পরামর্শে তাঁর চিকিৎসা চলছে।’

বিজ্ঞাপন
default-image

সর্বশেষ এই গায়ক ২০১৮ সালে একটি ছবিতে গান করেছিলেন। নির্মাতা মাসুদ হাসান উজ্জ্বল গানটি করতে তাঁকে অনুরোধ করেছিলেন। সে অনুরোধ ফেলতে পারেননি সুমন। অসুস্থ অবস্থায় তিনি গান করতে রাজি হন। ‘ঊনপঞ্চাশ বাতাস’ ছবিতে ব্যবহার করা হয় এই গান। বেশ আলোচিত হয়েছিল গানটি। গত বছর অক্টোবর মাসে ছবিটি মুক্তি পেয়েছে। তারপর গান করার কথা থাকলেও তিনি অসুস্থতার জন্য কণ্ঠ দিতে পারেননি। বাসায় টিভি দেখে ও মাঝেমধ্যে ভিডিও গেম খেলে সময় কাটানোর চেষ্টা করেন।

default-image
গান থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন