আলী যাকেরকে হারিয়ে শোকাহত তারকারাও
আলী যাকেরকে হারিয়ে শোকাহত তারকারাও

বরেণ্য অভিনেতা আলী যাকেরের প্রয়াণে বিনোদন অঙ্গনে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। তাঁকে শ্রদ্ধা জানিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়েছেন এ অঙ্গনের তারকারা। অভিনেতার প্রতি শ্রদ্ধা ও সম্মান জানিয়ে তাঁরা লিখেছেন, জ্যেষ্ঠ এই শিল্পীর দেখানো পথ ধরেই হাঁটতে চান তাঁরা।

default-image

ঘুম থেকে উঠেই অভিনেত্রী ও সাংসদ সুবর্ণা মুস্তফা জানতে পারেন আলী যাকের প্রয়াণের খবর। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তিনি লিখেছেন, ‘আলী যাকের, আমাদের প্রিয় ছটলু ভাই তাঁর জাগতিক ভ্রমণ শেষ করেছেন। প্রত্যাশা করি, সারা ভাবি, ইরেশ এবং শ্রেয়া এই বেদনা সহ্য করার শক্তি অর্জন করুক। আপনার জন্য ভালোবাসা ছটলু ভাই। সব সময়ের মতো বলব, আবার দেখা হওয়া পর্যন্ত বিদায়, এ তো কেবল সময়ের ব্যাপার। গভীর শ্রদ্ধা।’
বেশ কবছর ধরে ক্যানসারের সঙ্গে লড়ছিলেন আলী যাকের। নিয়মিত থেরাপি চলছিল তাঁর। গত সপ্তাহে শারীরিক সমস্যা হঠাৎ বেড়ে যাওয়ায় জরুরিভিত্তিতে তাঁকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। চিকিৎসকদের পরামর্শে তাঁকে সিসিইউতে রাখা হয়। সেই খবর আগে থেকেই জানতেন অভিনেত্রী জয়া আহসান।

default-image
বিজ্ঞাপন

এই অভিনেত্রী ফেসবুকে লিখেছেন, ‘আলী যাকের চলে গেলেন, কিন্তু বাংলাদেশের মঞ্চকে রেখে গেলেন অনেক উঁচু করে। অভিনয়ে, সংগঠনে, প্রবর্তনে। দীর্ঘাঙ্গ ছিলেন তিনি, শুধু শারীরিক অর্থে নয়, শিল্পের উচ্চতায়ও। মুক্তিযুদ্ধ করেছেন, সেই অনুপ্রেরণায় মঞ্চে এনেছেন নাটক; মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর প্রতিষ্ঠা করে দিয়েছেন তার পূর্ণতা। বিনম্র শ্রদ্ধা, শিল্পী ও মুক্তিযোদ্ধা।’

default-image

‘আলী যাকের এমন একটি নাম, যাঁর অবদান সংস্কৃতি অঙ্গনকে ঋদ্ধ করেছে। সশরীরে তিনি না থাকলেও সংস্কৃতির সব অঙ্গনে তাঁর অবদান মুছে যাওয়ার নয়। তাঁর বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করছি’, লিখেছেন ঢালিউড অভিনেতা শাকিব খান। প্রিয় মানুষকে হারিয়ে শোকে স্তব্ধ অভিনেত্রী জাকিয়া বারী মম লিখেছেন, ‘কোনো শব্দ নেই আমার কাছে। শুধু ভালোবাসা, কৃতজ্ঞতা আর শ্রদ্ধা জানবেন গ্যালিলিও, নূরলদীন।’ চঞ্চল চৌধুরী লিখেছেন, ‘গভীর শোক ও শ্রদ্ধা। চলে গেলেন যাকের ভাই।’ কণ্ঠশিল্পী তাহসান লিখেছেন, ‘বিদায় ছোট মামা।’

default-image

আলী যাকেরের কাছে অভিনয় শিখেছেন টনি ডায়েস। প্রিয় এই শিক্ষকের মৃত্যুতে তিনি লিখেছেন, ‘ছোটলু ভাই, মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে, ভালো থাকুন। আপনার শেখানো অভিনয়, মানবিক গুণাবলির চর্চা করে যাচ্ছি, প্রতিনিয়ত জীবনে কাজে লাগানোর চেষ্টা করছি। সৌভাগ্য, জীবনের শুরুতেই আপনার কাছে থাকতে পেরেছিলাম। আপনি থাকবেন আমাদের মাঝে, আমাদের হৃদয়ে। বিনম্র শ্রদ্ধা।’ শামীম শাহেদ লিখেছেন, ‘আলী যাকের আর নেই। আমাদের নূরলদীন, আমাদের গ্যালিলিও, আমাদের দেওয়ান গাজী, আমাদের ছটলু ভাই।’

default-image

অভিনেতা রিয়াজ লিখেছেন, ‘বিশিষ্ট অভিনেতা, স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শব্দসৈনিক, প্রগতিশীল সাংস্কৃতিক আন্দোলনের অন্যতম পুরোধা ব্যক্তিত্ব আলী যাকের আজ পৃথিবী ছেড়ে চলে গেলেন। মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করি।’

বিজ্ঞাপন

চলচ্চিত্রকার মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর বয়স তখন ২৩ বছর। দুবলার চর নিয়ে তখন তিনি তথ্যচিত্র বানাচ্ছিলেন। সেটার জন্য প্রয়োজন ছিল একটি ভরাট কণ্ঠস্বর। আলী যাকেরের কণ্ঠই ছিল সে কাজের জন্য সবচেয়ে যথাযথ। তখনকার কথা স্মরণ করে ফারুকী লিখেছেন, ‘নওরতন কলোনিতে তাঁর রুমটায় দুপুরে যখন ঢুকলাম, তখন জানালা দিয়ে তিনি বাইরে গাছ দেখছিলেন! এমন আগ্রহ ভরে দেখছিলেন, যেন খুব গুরুত্বপূর্ণ কিছু।

default-image

তারপর আমাকে দেখে তারও চেয়ে গুরুত্ব নিয়ে তাকালেন, মনোযোগ দিয়ে শুনলেন আমি কী চাই। তিনি তখন বিশাল তারকা। আমি চাইলাম আমার ডকুমেন্টারিতে তিনি যেন ভয়েসওভার পাঠ করেন। ছোটলু ভাই সেই অখ্যাত আমার কথায় রাজি হলেন। রাজি হলেন কী, তিনি এমন করতে লাগলেন, মনে হলো আমি তাঁকে নির্বাচন করার মাধ্যমে যেন একটা ফেভার করেছি। এই যে বিনয়, আমার মতো মানুষকে পরিচালকের সম্মান দেওয়া, এটা আমার আত্মবিশ্বাস তৈরিতে কত বড় ভূমিকা রেখেছে, সেটা বোঝাতে পারব না। আত্মবিশ্বাসের চাকা পাংচার করে দেওয়ার কালচার যে দেশে চলে, সেখানে এই কাজটা যে একটা তরুণকে কত শক্তিশালী করে তুলতে পারে, সেটা নিশ্চয়ই বোঝা যায়। যাকের ভাই, আমি জানি, আপনি এ রকম আরও বহু মানুষের জীবন অর্থবহ করে তুলেছিলেন। আপনার চিরশান্তির জন্য দোয়া করি।’

default-image

আলী যাকেরকে বাংলাদেশের সত্যিকারের কিংবদন্তি মনে করেন অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা। তিনি লিখেছেন, ‘আলী যাকের আজ আমাদের ছেড়ে চলে গেলেন। তিনি খুব ভালো মানুষ ছিলেন। তিনি আমাদের অনেকের জন্য একটি বাতিঘর।’ গণসংগীতশিল্পী ফকির আলমগীর লিখেছেন, ‘একুশে পদকপ্রাপ্ত বরেণ্য নাট্যজন আলী যাকেরের মৃত্যুতে ঋষিজ শিল্পীগোষ্ঠীর পক্ষ থেকে বিনম্র শ্রদ্ধা।’ নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী লিখেছেন, ‘আলী যাকের আঙ্কেল নেই। এ এক বিষণ্ন কষ্টের সকাল।’

default-image

‘বিশিষ্ট অভিনেতা, স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শব্দসৈনিক, প্রগতিশীল সাংস্কৃতিক আন্দোলনের অন্যতম পুরোধা ব্যক্তিত্ব আলী যাকের আঙ্কেল আর নেই। আজ ভোরে তিনি চিরবিদায় নিলেন এ পৃথিবী থেকে। তাঁর আত্মার মাগফিরাত কামনা করি।’ আলী যাকেরের প্রয়াণে এভাবেই শোক প্রকাশ করেছেন অভিনেত্রী পপি।

default-image
মন্তব্য করুন