বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

তনিমা বলেন, ‘প্রথম দিকে করোনা নিয়েই চাচা–চাচি বাসায় চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। হঠাৎ করেই চাচার শ্বাসকষ্ট বাড়তে থাকে। হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তাঁর ফুসফুসের বড় অংশ সংক্রমিত হয়ে গিয়েছিল। আইসিইউতে রাখার পর গত মাসের শেষ দিকে তাঁর কোভিড নেগেটিভ আসে। এখন করোনা–পরবর্তী জটিলতার কারণে তিনি খুবই দুর্বল হয়ে পড়েছেন। একটি মেডিকেল বোর্ডে গঠন করে তাঁর চিকিৎসা চলছে।’

করোনা–পরবর্তী এই অভিনেতার কী ধরনের সমস্যা হচ্ছে, জানতে চাইলে তনিমা বলেন, ‘এখনো নিশ্বাসে সমস্যা রয়েছে। ফুসফুস ঠিকমতো কাজ করছে না। নিউমোনিয়ার ধাঁচ আছে। এখন পুরো চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানে রয়েছেন। গতকালও বাবা (ম হামিদ) সাড়ে দশটার দিকে হাসপাতালে গিয়েছিলেন। চাচা শরীরে জোর না পেলেও হেসে কথা বলার চেষ্টা করেছেন। ডাক্তাররা জানিয়েছেন, আগে থেকেই চাচার কিছু শারীরিক জটিলতা ছিল। চাচা কোনো সমস্যাই পরিবারের কাউকে জানাতে চাইতেন না। আরও কিছুদিন তাঁকে নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখতে হবে। দেশবাসীর কাছে তাঁর জন্য দোয়া চাচ্ছি।’

default-image

মাহমুদ সাজ্জাদ শৈশব থেকেই সংস্কৃতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। পরে মঞ্চনাটকে অভিনয় শুরু করেন। তিনি খান আতাউর রহমানের ‘ঝড়ের পাখি’, ‘আপন পর’সহ বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। একসময় টেলিভিশনে নিয়মিত অভিনয় করতেন। টেলিভিশনে তাঁর অভিনীত প্রথম ধারাবাহিক নাটক ‘সকাল সন্ধ্যা’।

টেলিভিশন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন