সিবিএল মানচি চাংকি চক নিবেদিত ‘ভালোবাসার দিনে ভালোবাসার গল্প সিজন-৩’ আয়োজনে মাহিয়া মাহির উপস্থাপনায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মীর সাব্বির ও ফারজানা চুমকি
সিবিএল মানচি চাংকি চক নিবেদিত ‘ভালোবাসার দিনে ভালোবাসার গল্প সিজন-৩’ আয়োজনে মাহিয়া মাহির উপস্থাপনায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মীর সাব্বির ও ফারজানা চুমকিছবি: প্রথম আলো

১৪ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে তারকা দম্পতি মীর সাব্বির ও ফারজানা চুমকির বিবাহবার্ষিকী। দুজন মানুষ দুজনকে কতটা ভালোবাসলে এ দিনটিতে বিয়ে করেন, সেটা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। তারকা এ দম্পতিকে নিয়ে মাহিয়া মাহির উপস্থাপনায় ভালোবাসা দিবস উপলক্ষে প্রথম আলো ফেসবুক পেজ ও ইউটিউব চ্যানেলে প্রচারিত হয় সিবিএল মানচি চাংকি চক নিবেদিত ‘ভালোবাসার দিনে ভালোবাসার গল্প সিজন-৩’।

অনুষ্ঠানে শুরুতেই মান্না দের গানের সঙ্গে তাল মিলিয়ে মাহিয়া মাহি জানতে চান—কে প্রথম ভালোবেসেছে, কে প্রথম কাছে এসেছে? গানের সুরের সঙ্গে মিলিয়ে মীর সাব্বিরের দিকে তাকিয়ে চুমকির উত্তর—তুমি। মীর সাব্বিরের মুখেই শুনি বাকিটা, ‘চুমকিকে প্রথম প্রপোজ আমিই করেছিলাম। চিরকুটে লিখে ভালোলাগা-ভালোবাসার অনুভূতির কথা প্রথমে জানিয়েছিলাম আমি। এর আগে থেকেই অল্প অল্প ভালোলাগা শুরু আমাদের মধ্যে। কিন্তু বলা হয়ে ওঠে নাই। চিরকুট পেয়ে খুবই পুলকিত হয়েছিল ফারজানা চুমকি।’ এরপর অন্য নাম বলে ফোন করে মীর সাব্বিরদের বাসায়। অন্য নামে ফোন দিলেও চুমকির ফোন দেওয়ার কথা বুঝে যায় সাব্বির।

বিজ্ঞাপন

অতঃপর চুমকিকে সাব্বিরের ফোন....এভাবেই শুরু তারকা এ দম্পতির প্রেম। তবে প্রেম শুরুর আগে গোপনে মীর সাব্বিরের বাসায় গিয়ে খোঁজখবর নিয়েছিলেন চুমকি। প্রতিদিন দেখা না হলেও প্রায় দিনেই চুমকিকে চিঠি লিখতেন মীর সাব্বির। আর চুমকি পাঠাতেন কার্টুন এঁকে। চিঠির কালের প্রেমেই ইমোশন ছিল বেশি, বর্তমানে প্রেমে সেটা নেই এমনটাই জানান তাঁরা।

প্রেমের সঙ্গে ঝগড়া ও মান-অভিমান ওতপ্রোতভাবে জড়িত। নিজেদের মধ্যে প্রেমের আগে ও পরে মান-অভিমান হয়েছিল, এখনো হয় চুমকি ও সাব্বিরের। বিয়ের আগে-পরে বা বর্তমানে একেক সময় প্রেমের সৌন্দর্য একেক রকম। কোনো নায়িকা-নায়কের সঙ্গে রোমান্টিক অভিনয় করলে কী খারাপ লাগে? চুমকি ও সাব্বিরের এক কথায় উত্তর—না। বিয়ের দ্বিতীয় বছরেই চুমকির জন্মদিনে ১৮ জন বন্ধুকে দিয়ে সারপ্রাইজ দিয়ে অবাক করেছিলেন মীর সাব্বির।

default-image
টেলিভিশন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন