বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

মৎস্যাসন

কীভাবে করবেন: পদ্মাসনে বসুন। হাতের পাতাকে কাঁধের পেছনে ঠেকিয়ে তাতে ভর করে গ্রীবা যতটা পেছনে মুড়তে পারুন মুড়ে নিন। পিঠ আর বুক ওপরের দিকে উঠে থাকবে এবং হাঁটু মাটির সঙ্গে লেগে থাকবে। হাত দিয়ে পায়ের বৃদ্ধাঙ্গুলি টেনে ধরে শ্বাস ভেতরে ভরে নিন। ১০-৩০ সেকেন্ড (সাধ্য অনুযায়ী) শ্বাস আটকে রাখুন। এরপর দম ছেড়ে দিয়ে পায়ের আঙুল ছেড়ে হাতের সাহায্য নিয়ে মাথা সোজা করুন। পায়ের বন্ধন খুলে আসনে ১০-৩০ সেকেন্ড বিশ্রাম নিন।

কতবার করবেন: আসনটি ৫ থেকে ১০ বার প্রতিদিন করুন। অবশ্যই খালি পেটে করবেন।

উপকারিতা: মৎস্যাসন শুধু ডাবল চিন সমস্যার জন্য নয়, আরও অনেক উপকারিতা রয়েছে। থাইরয়েডের সমস্যা দূর করে। ফুসফুসের রোগ, শ্বাসকষ্ট, হাঁপানি ইত্যাদি রোগ এই আসনে দূর হয়ে যায়।

default-image

মাথা ওপর–নিচ করা

যেভাবে করবেন: স্বাভাবিকভাবে মাথা ওপরে–নিচে নিলেই হবে না। শ্বাসপ্রশ্বাসের নিয়ম ও সময়কালও আপনাকে মানতে হবে। প্রথমে যেকোনো আসনে সোজা হয়ে বসুন। শ্বাস নিতে নিতে মাথা ওপরের দিকে ওঠান। গলার মাংসপেশি যেন সর্বদা টান টান থাকে। আপনি যদি দম ধরে রেখে করতে চান, সে ক্ষেত্রে ১০-৩০ সেকেন্ড ধরে রাখবেন। যদি এই অবস্থায় শ্বাসপ্রশ্বাস চালাতে চান, তাহলে ৩০ সেকেন্ড থাকুন। এবার শ্বাস ছাড়তে ছাড়তে মাথা নিচে ঝুঁকান। এমনভাবে ঝুঁকাবেন যেন থুতনি বুকে স্পর্শ করে। এই অবস্থায় দম না নিয়ে থাকতে চাইলে ১০-৩০ সেকেন্ড থাকুন। শ্বাসপ্রশ্বাস নিতে চাইলে ৬০ সেকেন্ড থাকুন। এভাবে ওপর–নিচ মোট ৫ বার করুন।

সতর্কতা: ঘাড়ে কোন ধরনের ব্যথা থাকলে মাথা উপরে ও নিচে এভাবে করা নিষেধ।

default-image

মাথা পাশে ঝোঁকানো

যেভাবে করবেন: দেখতে খুব সহজ মনে হতে পারে, তবে শ্বাসপ্রশ্বাসের নিয়ম অবশ্যই মানতে হবে। হাতের সাহায্য নিয়ে শুরু করুন। ডান দিকে মাথা ঝুঁকানোর সময় অবশ্যই ডান হাত এবং বাম দিকে ঝুঁকবার সময় অবশ্যই শ্বাস ছাড়তে ছাড়তে ঝুঁকাবেন। ঝুঁকার সময় এমনভাবে চাপটা নিয়ন্ত্রণ করবেন, যাতে গলার মাংসপেশিগুলো একটু জেগে ওঠে বা শক্ত হয়ে যায়।

সময়কাল: যদি শ্বাস বন্ধ রাখেন, তাহলে ১০-৩০ সেকেন্ডে পর্যন্ত। যদি শ্বাস চলতে থাকে, তাহলে ৬০ সেকেন্ড, তবে শ্বাসপ্রশ্বাস খুবই ছোট হবে। অন্যথায় ঘাড়ে বা গলায় মাসাল ক্রাম্প হতে পারে।

ডানে–বাঁয়ে ১ সেট হলে মোট ৫ সেট করুন।

লেখক: যোগব্যায়াম প্রশিক্ষক

প্র অধুনা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন