পাঠকের লেখা

মনের বাক্স

বিজ্ঞাপন
default-image

যদি মন কাঁদে

আমি তখন সদ্য উচ্চমাধ্যমিকের ছাত্র। একটি সরকারি কলেজের বাণিজ্য বিভাগে পড়ছি। কলেজজীবনের শুরুতেই আমি যে নারীর প্রেমে পড়ি, সে তখন মফস্বল শহরের নামকরা বালিকা বিদ্যালয়ের ছাত্রী। কীভাবে যেন হয়ে গেল প্রেম। সারারাত কথা বলেও শেষ হতো না। পারিবারিক, সামাজিক, আর্থিক ও পড়ালেখার চাপে দেখা হতো না বেশি। সপ্তাহে দু–একবার। কতবার যে ঝগড়া হয়েছে, তার কোনো হিসাব আমার কাছে নেই। একটি পুরোনো ডায়েরির হিসাবে সংখ্যাটা প্রায় ৪৭।

কোনো এক অদৃশ্য কারণে সে আজ অনেক দূরে। যে শহরের প্রতিটি রাস্তা, রেস্তোরাঁ, স্কুল–কলেজের মাঠ, স্টেডিয়াম কিংবা সরু গলি আমাদের চেনে, আমি সে শহরেই আছি। কখনো মনে পড়লে চলে এসো তুমি। তোমার অপেক্ষায় আছে এ শহরের সব জায়গা, আর একটা মানুষও।

রাফাতুল, কিশোরগঞ্জ।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

রাগের ডিব্বা

প্রিয় মুস্তুকু

ভাবলাম তোমাকে আমার ভালোবাসাটুকু ভিন্ন উপায়ে অনুভব করাই, তাই মনের বাক্সকে বেছে নিলাম। এই লেখাটা লেখার সময় তুমি আমার ওপর রেগে আছো, কারণ অনলাইনে থাকা সত্ত্বেও আমি তোমার মেসেজের রিপ্লাই করিনি। তুমি কি জানো, তোমার এই রাগ বা অভিমানটুকু আমি ভীষণ ভালোবাসি!

আমার ইচ্ছা হচ্ছে এই মুহূর্তে বেগুনি রঙের শাড়ি পরে জাদুবলে তোমার সামনে উড়ে গিয়ে বসি। আর তুমি আমার চুড়ির শব্দে ধড়ফড় করে বলবে, ‘মৌটুসি তুমি!’ আমি তখন দুহাত তোমার দুগালে রেখে কপালে আলতো চুমু খেয়ে বলব, ‘বড্ড ভালোবাসি তোকে পেটুক। আচ্ছা, এক যুগ যদি তোর এই যান্ত্রিক বার্তার উত্তর না দিই, ভালোবাসবি তো?’

ফারজানা ইসলাম, সিলেট

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

দেখা হবে শিগগিরই...

প্রিয় লেমন (লিমন),

বুঝেছিস, এই ভাদ্র মাসেও প্রচণ্ড শীত অনুভূত হচ্ছে। আলমারি থেকে সব কাঁথা–কম্বল নামিয়েছি। বিড়ালের মতো সারা দিন কম্বল গুটিয়ে শুয়ে থাকি। জ্বর কি না, সেটাও বুঝতে পারছি না।

যাহোক, আবাসিক থেকে ফেরার সময় তোর ফোন নম্বর নিয়ে আসা উচিত ছিল। এত দিন একসঙ্গে থাকার পরও ফোন নম্বর নেওয়ার প্রয়োজন মনে করিনি কেন জানিস? কখনো ভাবিনি এভাবে আলাদা হয়ে যেতে হবে। স্কুল খুললে হয়তো আবার এক হতে পারব, তবে এত লম্বা সময় তোর কোনো খোঁজ না পেয়ে সত্যিই খারাপ লাগছে। স্যারকে ফোন করে তোদের বাসার একটা নম্বর নিয়েছিলাম। কিন্তু বলছে সংযোগ দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। যেখানেই থাকিস না কেন ভালো থাকিস। স্কুল খুললে জেলা সদর মাঠে বাজিতে ম্যাচ জেতাতে হবে কিন্তু আবার।

এত দিনে আমাকে ভুলেই গেছিস কি না, কে জানে!

রনি, টাঙ্গাইল

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ভালোবাসা কী

ভালোবাসা হচ্ছে ধানমন্ডি ২৭ নম্বর সড়কে জমে থাকা বৃষ্টির পানিতে তোমার হাত ধরে হেঁটে কক্সবাজার সমুদ্রসৈকতে হাঁটার আনন্দ পাওয়া। ভালোবাসা হচ্ছে বার্গারের খালি রুটি খেয়ে তোমাকে মুরগি, চিজ, পেঁয়াজ, টমেটো মেশানো অংশ খাইয়ে গভীর আনন্দ পাওয়া। ভালোবাসা হচ্ছে পাঁচ মিনিট অপেক্ষা করতে বলে আধা ঘণ্টা দেরি করে এলেও হাসি দিয়ে তাকে কাছে টেনে নেওয়া।

ভালোবাসা হচ্ছে পাহাড়সমান কষ্ট নিয়ে তোমার কাছে গেলে তা নিমেষেই মাটি হয়ে যাওয়া।

রিয়াদ

লালবাগ, ঢাকা।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

মনের বাক্সে লেখা পাঠানোর ঠিকানা

অধুনা, প্রথম আলো, প্রগতি ইনস্যুরেন্স ভবন, ২০–২১ কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।

ই-মেইল: adhuna@prothomalo.com, ফেসবুক: facebook.com/adhuna.PA খামের ওপর ও ই-মেইলের subject–এ লিখুন ‘মনের বাক্স’

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন