default-image

পোড়োবাড়ি

সিকদার নাজমুল হক

এ বাড়ির চারপাশে গাছগুলো পাতা নাড়ে রোদের আলোয়,

এ বাড়িতে পাখি ডাকে, দিন কাটে সুখে-দুখে মন্দ-ভালোয়।

এ বাড়িতে জুঁই ফোটে, এ বাড়িটা সাজে নীল অপরাজিতায়,

এ বাড়িতে গাছে গাছে বুনো লতা চুল বাঁধে সোনালি ফিতায়।

এ বাড়িটা জোনাকির, এ বাড়িটা রাজপুরী স্বপ্ন-জাদুর,

এ বাড়িটা কার বাড়ি? এ বাড়িটা ছিল জানো আমার দাদুর!

মার্চের কালরাতে এ বাড়িতে এসেছিল শত্রুমানব,

বর্বর পাকসেনা নিষ্ঠুর মায়াহীন অসুর দানব—

ছাই করে দাদুবাড়ি, তোমরা কি দেখেছ সে নিঠুর দাহন?

দেখেছ কি এ বাড়িতে ভাষাহীন মানুষের করুণ চাহন?

এ বাড়িতে কেউ আর পোহায় না রোদ্দুর বিছিয়ে মাদুর,

এ বাড়িটা কার বাড়ি? এ বাড়িটা ছিল জানো আমার দাদুর!

এ বাড়িতে প্যাঁচাগুলো চুপিচুপি আনমনে পাখনা নাড়ায়,

ভয় এসে এ বাড়িতে হিমহিম বেদনায় দুবাহু বাড়ায়।

এ বাড়িটা পোড়োবাড়ি, এ বাড়িতে খেলা করে নিকষ আঁধার,

রাত হলে এ বাড়িতে শিয়ালের আয়োজন রাগিণী সাধার।

ঘনঘোর আন্ধারে এ বাড়িতে ডানা মেলে নিশীথ বাদুড়,

এ বাড়িটা কার বাড়ি? এ বাড়িটা ছিল জানো আমার দাদুর!

বিজ্ঞাপন
গোল্লাছুট থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন