কাফতানের সঙ্গে ধুতি সালোয়ার এনেছে নতুন মাত্রা
কাফতানের সঙ্গে ধুতি সালোয়ার এনেছে নতুন মাত্রামডেল: তৃণ, পোশাক: আনোখি বাই হুমায়রা খান, ছবি: কবির হোসেন

কাফতান দিয়ে তৈরি করা যায় ভিন্ন ধারার লুক

বিজ্ঞাপন
default-image

এই সময়ে আবহাওয়ায় কাফতানের মতো পোশাক বেশ স্বাচ্ছন্দ্য দেয়। ঘরে তো বটেই, বাইরেও বেশ আরাম মেলে এ পোশাকে।

একটু ঢিলেঢালা লম্বা পোশাক কাফতান। তবে এখন আমাদের আবহাওয়া উপযোগী কাটছাঁটে তৈরি হচ্ছে পোশাক। নকশা ও কাপড় নিয়েও চলছে নানা নিরীক্ষা। এত দিন পা থেকে হাঁটু পর্যন্ত দেখা যেত কাফতানের দৈর্ঘ্য। তবে এখন তরুণীদের কাছে জনপ্রিয় হচ্ছে কোমর পর্যন্ত দৈর্ঘ্যের কাফতান। কোমর পর্যন্ত এসব কাফতানে যোগ করতে পারেন নানা নতুনত্ব।

এ ধরনের কাফতানে নিচের দিকে ঝালর বা কুঁচির নকশা থাকলে ভালো দেখাবে। এ ছাড়া যেকোনো খাটো পোশাকেই সামনে নিচু, পেছনে উঁচু্—এই কাটও বেশ মানিয়ে যায়। বোটনেক বা গোল গলা—দুটিই মানিয়ে যাবে এই পোশাকের সঙ্গে। কাফতানে এখন যোগ হচ্ছে বেলুন ছাঁটের হাতার ব্যবহার। চাইলে হাতায় রাখতে পারেন নানা রকম ফ্রিল। প্রজাপতি হাতার ব্যবহারও বেশ দেখা যায়।

ছোট দৈর্ঘ্যের এসব কাফতানের সঙ্গে সালোয়ারটাও মানানসই হওয়া জরুরি।এ ধরনের কাফতানের সঙ্গে একটু ঢোলা সালোয়ার পরতে পারেন। সালোয়ারের জন্য বেছে নিতে পারেন সাটিন কাপড়। সবচেয়ে ভালো হবে যদি সালোয়ারটা হয় ধুতি কাটের। কাপড়ের ভিন্নতার পাশাপাশি কাফতানের কাটছাঁটের এই বৈচিত্র্য পুরো পোশাকটিতেই এক ধরনের স্টাইলিশ আবহ নিয়ে আসে। চাইলে কাফতানের কোমরে ফিতা ব্যবহার করতে পারেন। এতে পুরো পোশাকটিতে আসবে ভিন্নমাত্রা।

নকশা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন