>সীমা রউফের বেড়ে ওঠা চট্টগ্রামে। প্রায় ৩০ বছর ধরে বসবাস করেছেন চট্টগ্রামের কাফকো হাউজিং কলোনিতে। রান্নার প্রতি ভালোবাসা জন্মে স্কুলে পড়ার সময়। তখন নানা রকম বেকিং দিয়ে হাত পাকাতে থাকেন। এখন দেশি–বিদেশি নানা রকম রান্না করতে ভালোবাসেন। একসময় একটি বিউটি পারলার পরিচালনা করলেও এখন পুরোদস্তুর রন্ধনশিল্পী। ইউটিউবে তাঁর রান্নার চ্যানেল রয়েছে। নকশার পাঠকদের জন্য চট্টগ্রামের কয়েকটি খাবারের রেসিপি দিয়েছেন সীমা রউফ
default-image

দোমাছা

উপকরণ: চিংড়ি মাছ ১ কাপ, লইট্টা শুঁটকি ১ কাপ, হলুদ ১ চা-চামচ, লাল মরিচবাটা ২ চা-চামচ, টমেটো ২টি ফালি করে কাটা, কাঁচামরিচ ৫–৬টি কাটা, তেল ৪ টেবিল চামচ, আধা কাপ পেঁয়াজকুচি, আদা ও রসুনবাটা ১ চা-চামচ, জিরাবাটা ১ চা-চামচ, মরিচগুঁড়া ১ চা-চামচ, স্বাদমতো লবণ, পানি ১ কাপ, ধনেপাতাকুচি ৩ টেবিল চামচ।

প্রণালি: চুলায় কড়াই বসিয়ে তেল, পেঁয়াজ, আদা, রসুন দিয়ে ৩ মিনিট কষিয়ে নিন। পরিমাণমতো পানি দিয়ে ঢাকনা দিয়ে বলক ওঠা পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। ধনেপাতা দিয়ে পরিবেশন করুন।

default-image

হেলেন ডাল

উপকরণ: হেলেন ডাল ২ কাপ (সারা রাত ভিজিয়ে রাখতে হবে), মাগুর মাছ ২টি (হলুদ, লবণ দিয়ে ধুয়ে মাখিয়ে রাখতে হবে), তেল ৪ টেবিল চামচ, টমেটো ২টি (কেটে নেওয়া), রসুনবাটা ১ চা-চামচ, ধনেগুঁড়া ১ চা-চামচ, হলুদগুঁড়া ১ টেবিল চামচ, লাল মরিচগুঁড়া ১ টেবিল চামচ, জিরাগুঁড়া দেড় টেবিল চামচ, ২ কাপ গরম পানি।

প্রণালি: প্রথমে চুলায় কড়াই বসান। এতে ৪ টেবিল চামচ তেল, পেঁয়াজ ও ওপরের সব উপকরণ দিয়ে ভালো করে কষে নিয়ে ডাল আর মাছ দিন। এবার নাড়াচাড়া করে গরম পানি দিয়ে ঢেকে দিতে হবে। একটি পাত্র চুলায় দিয়ে ৩ টেবিল চামচ তেল, ১ চা-চামচ আদাকুচি আর অল্প পেঁয়াজ দিয়ে লাল করে ভেজে ডালে দিয়ে দিন। পরিবেশন করুন।

default-image

ঐতিহ্যবাহী দুরুস

উপকরণ:

ক. পেঁয়াজবাটা সিকি কাপ, জিরাবাটা ১ চা-চামচ, আদাবাটা ৩ চা-চামচ, কাঁচা মরিচবাটা ১ টেবিল চামচ, ধনেবাটা ১ চা-চামচ, গরম মসলা ১ চা-চামচ, জর্দার রং সিকি চা-চামচ, হলুদ আধা চা-চামচ, পোস্ত ১ চা-চামচ, কাজুবাদাম ১ টেবিল চামচ, লবণ পরিমাণমতো ও তেল আধা কাপ।

খ. নারকেল সিকি কাপ, কিশমিশ ১০টি, বেরেস্তা আধা কাপ, জয়ফল সিকি চা-চামচ, দই ৩ টেবিল চামচ (পানি দিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিতে হবে)।

গ. কেওড়া জল ১ টেবিল চামচ, দুধ ১ কাপ, চিনি ১ চা-চামচ, কিশমিশ ১০টি ও পেঁয়াজ বেরেস্তা।

প্রণালি: প্রথমে মুরগির পাগুলো দুই পাশে ঢুকিয়ে মুরগির বুকের ওপরের অংশ কেটে নিতে হবে। উপকরণ ক–এর সব মসলা ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। পুরো মুরগিতে মেখে দুই ঘণ্টা রেখে দিন। কড়াইয়ে তেল দিয়ে মুরগিটিকে তিন বা চার মিনিট ভেজে নিতে হবে অল্প আঁচে। মাখানো মসলাগুলো পাত্রে ঢেলে দুই বা তিন মিনিট ভেজে কষিয়ে নিন। মসলা ভালোভাবে কষা হলে ঢেকে দিন।

এবার উপকরণ খ–এর পেস্ট কড়াইয়ে ঢেলে দুই-তিন মিনিট কষিয়ে নিন।

উপকরণ গ–এর সবকিছু দিয়ে পরিবেশন করুন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0