default-image

ফুটিল বকুল ফুল লো গোকুলে আজি

কহ তা সজনী?

আইল কি ঋতুরাজ? ধরিলা কি ফুল সাজ

বিলাসে ধরণী?

মৃদু ফাল্গুনী হাওয়া আর গাঁদা, ডালিয়া, জিনিয়া, গোলাপের দোল খাওয়া সরবে জানান দিচ্ছে বসন্ত দুয়ারে। ধরণির এই সাজ দেখে ব্রজাঙ্গনা কাব্যে কবি মাইকেল মধুসূদন দত্তের মনেও প্রশ্ন, বসন্ত কি বুঝি এসেছে? প্রকৃতির দুয়ারে কড়া নাড়ছে বসন্ত। সবকিছুতেই সাজ সাজ ভাব।

তবে এবারের পয়লা ফাল্গুন আগের ফাল্গুনের চেয়ে একটু আলাদা। করোনাকাল, তাই বাইরে যেতে হবে বুঝেশুনে। চুলের সাজে বেশি জাঁকজমক কিছু দরকার নেই। চুল ছোট হোক বা বড়—নিজেই করা যায়, এমন পরিপাটি আর গোছানো সাজেই থাকতে পারে উৎসবের ভাব।

বিজ্ঞাপন
default-image

চুলের সাজকে রঙিন করতে বিভিন্ন ফুলের ব্যবহার অনেক দিনের অভ্যাস। তবে ফুল ছাড়াও সাজানো যায় চুল। এবার তো আবার কাঁচা ফুল ব্যবহারে একটু সচেতন থাকতে হবে। বিকল্প হিসেবে পরতে পারেন কৃত্রিম ফুল। বলছিলেন পারসোনার পরিচালক নুজহাত খান।

চুল বাঁধা যত হালকা হবে, তত সুন্দর লাগবে। তাই দুই পাশে চুল টুইস্ট করে টেনে পেছনে নিয়ে আটকে নিতে পারেন। সহজেই নিজে নিজে করা যাবে চুলের এমন সাজ।

বড় চুলের জন্য এলোমেলো খোঁপা বা মেসি বান হতে পারে সঠিক সাজ। পেছনের দিকে বাঁ কাঁধের এক পাশেও কিছু চুলের গোছা পেঁচিয়ে নিতে পারেন।

রং করা চুলে একটু আধুনিক সাজই ভালো লাগবে। কোঁকড়ানো চুলে খোঁপা বা বেণি না করে খোলা রাখলেই সৌন্দর্য বাড়বে। মাঝারি আকারের ফুল কানের পাশ দিয়ে ক্লিপের মতো করে ব্যবহার করলে তা হবে মানানসই।

default-image

নিজেই করতে পারেন

১.ঘরে চুল সোজা বা কোঁকড়া করার যন্ত্র ব্যবহার করে চুলে আনতে পারেন ভিন্নতা।

২.সোজা চুল কানের পাশ থেকে একটু ঘুরিয়ে বা টুইস্ট করে নিন। ফুলের ক্লিপ ব্যবহার হতে পারে বসন্তের ভিন্নধর্মী চুলের সাজ।

৩.পছন্দমতো বেণি করে বেণির শুরুতে বা বেণির নিচে ব্যান্ড বা কৃত্রিম ফুল পেঁচিয়ে নিতে পারেন।

বিজ্ঞাপন
নকশা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন