বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

নকশার ভিন্নতা

default-image

বর্তমানে ফার্নিচারে নকশার বা ডিজাইনের বেশ ভিন্নতা দেখা যাচ্ছে। বাসা বা অফিসে ফার্নিচার ব্যবহারে যেন কম জায়গা লাগে, সেই ভাবনা থেকেই এখনকার আসবাবগুলো বানানো হচ্ছে। জায়গা বাঁচানোর জন্য স্পেস সেভিং বেড, সোফা কাম বেড, স্পেস সেভিং ডাইনিং সেট, ওয়াল ক্যাবিনেট, চেয়ার অ্যান্ড ল্যাডার, রিডিং ইউনিটের জনপ্রিয়তা এখন বেশি।

কোথায় পাবেন

ব্র্যান্ডের পাশাপাশি বর্তমানে নন-ব্র্যান্ডের চাহিদাও বেশ ভালো। ব্র্যান্ডের ফার্নিচারের মধ্যে নাভানা, ইশো, সেভয়ের, বহু, হাতিল, অটবি, অ্যাশলে, নাদিয়া পারটেক্স, আখতার ফার্নিচার, ব্রাদার্স ফার্নিচারের চাহিদা বেশি। রাজধানীর পান্থপথ, খিলগাঁও, মীরপুর, যাত্রাবাড়ি, রামপুরা, পুরান ঢাকা, মোহাম্মদপুরসহ ঢাকার প্রায় সব এলাকাতেই আসবাব পাওয়া যায়। এ ছাড়া জেলা ও উপজেলা শহরে ফার্নিচারের দোকান রয়েছে।

দরদাম

যেকোনো আসবাব বা ফার্নিচারের দাম নির্ভর করে তার উপকরণ, নির্মাণপদ্ধতি ও নকশার ওপর। ব্র্যান্ডের ফার্নিচারের দাম তুলনামূলক একটু বেশি। কিন্তু নন-ব্র্যান্ডের ফার্নিচারের দাম তুলনামূলক কম।

সবার চাহিদা মেটাবে নাভানা ফার্নিচার

default-image

ওয়াহেদ আজিজুর রহমান, নাভানা গ্রুপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা

সব আয়ের মানুষ যাতে ভালো আসবাব কিনতে পারেন, সেই লক্ষ্যে কাজ করছে নাভানা। সারা বাংলাদেশে আমাদের ৪০টি শোরুম রয়েছে। বাণিজ্য মেলাসহ দেশের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে নাভানা অংশগ্রহণ করছে। বাণিজ্য মেলায় নাভানা ১০০টির বেশি নতুন ডিজাইন নিয়ে এসেছে। মেলায় টিভি স্ক্রিনের মাধ্যমে থ্রিডি প্রোডাক্ট ভিউয়ের সুযোগ রাখা হয়েছে। ক্রেতারা বাণিজ্য মেলা থেকে নাভানার আসবাব কিনলে ৫ থেকে ১৫ শতাংশ পর্যন্ত ছাড় পাবেন।

সব ধরনের ক্রেতার জন্য আসবাব বানায় নাভানা। আগামী পাঁচ বছরে রপ্তানি বাজারে অবস্থান পোক্ত করার লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছি আমরা। বর্তমানে ৩০-৩৫ ধরনের আসবাব বিক্রি করছে নাভানা ফার্নিচার। বিশ্বের যেকোনো জায়গা থেকে অনলাইনে নাভানা ফার্নিচার দেখা ও কেনার সুযোগ রয়েছে।

নকশা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন