default-image

ইনজেকশন দেওয়ার জন্য মাত্র একবার ব্যবহারের উপযোগী ‘স্মার্ট সিরিঞ্জ’ চালু করা উচিত বলে মত দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। নতুন ধরনের এই সিরিঞ্জ একবার ব্যবহারের পর ভেঙে যাবে বলে চাইলেও তা পুনরায় ব্যবহার করা যাবে না। ২০২০ সালের মধ্যেই দুনিয়াজুড়ে নতুন এই স্মার্ট সিরিঞ্জ চালুর ঘোষণা দিয়েছে সংস্থাটি।

একই সিরিঞ্জ একাধিকবার ব্যবহারের কারণে প্রতিবছর দুনিয়াজুড়ে প্রায় ২০ লাখ মানুষ হেপাটাইটিস ও এইচআইভিসহ অন্যান্য সংক্রামক রোগে আক্রান্ত হয়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, এমন স্মার্ট সিরিঞ্জ ব্যয়বহুল হলেও বিপুলসংখ্যক মানুষকে চিকিৎসা দেওয়ার ব্যয়ের চেয়ে তা কম এবং সুবিধাজনক।

প্রতিবছর সারা দুনিয়ার চিকিৎসা খাতে প্রায় এক হাজার ৬০০ কোটি সিরিঞ্জ প্রয়োজন হয়। সাধারণ সিরিঞ্জগুলো অনেক দেশেই পুনরায় ব্যবহার করে থাকেন ‘অসচেতন’ স্বাস্থ্যকর্মীরা। কিন্তু নতুন এই স্মার্ট সিরিঞ্জ একবার ব্যবহারের পর এর ভেতরের প্লাঙারটি আর পেছনে টেনে আনা সম্ভব হবে না কিংবা এর সুইটাও এমনভাবে তৈরি করা হবে যা আর পুনরায় ব্যবহার করা যাবে না।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ইনজেকশন নিরাপত্তাবিষয়ক দলের প্রধান সেলমা খামাসি বিবিসি নিউজ ওয়েবসাইটকে বলেছেন, ‘আশা করা যায় প্রতিবছর হেপাটাইটিস বি ভাইরাসের নতুন প্রায় ১৭ লাখ সংক্রমণ ঠেকাতে পারবে এই উদ্যোগ। পাশাপাশি বছরে আরও প্রায় তিন লাখ হেপাটাইটিস সি এবং ৩৫ হাজার এইচআইভি সংক্রমণও রোধ করা সম্ভব হতে পারে এভাবে। আর ইবোলা ও মারবার্গের মতো অন্যান্য অজানা সংক্রমণ রোধেও সহায়ক হবে এই স্মার্ট সিরিঞ্জ।’

বিজ্ঞাপন
জীবনযাপন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন