default-image

স্ক্যাবিস একধরনের ছোঁয়াচে চর্মরোগ, সাধারণ লোক যাকে খোসপাঁচড়া বলে থাকেন। এটি ভাইরাস বা ব্যাকটেরিয়াজনিত নয়, বরং এটি ত্বকে বাসা বাঁধে এমন একধরনের কীটের কারণে হয়। এই কীটের নাম স্ক্যাবিয়াই সারকপটিস স্ক্যারিবাই। এটি ত্বকের মধ্যে বাসা বাঁধে, ডিম পাড়ে।

বাসায় একজন আক্রান্ত হলে অন্য সদস্যদেরও এ রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি থাকে। বিশেষ করে গরমকালে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতায় ঘাটতি হলে এ রোগ বেশি হয়। একজন থেকে আরেকজনে স্পর্শের মাধ্যমে বা রোগীর ব্যবহৃত কাপড়, গামছা, তোয়ালে, বিছানার চাদর, বালিশ ব্যবহার করলে এ রোগ ছড়াতে পারে।

স্ক্যাবিস হলে সারা শরীর চুলকাতে থাকে। তবে আঙুলের ফাঁকে, নিতম্বে, যৌনাঙ্গে, হাতের তালুতে, কবজিতে, বগল, নাভি ও কনুইয়ে চুলকানি শুরু হয় এবং পরে সমস্যা আরও বাড়তে থাকে। এ ক্ষেত্রে চুলকানি রাতে বেশি হয়। ছোট ছোট ফুসকুড়ি ওঠে, যা খুব চুলকায় এবং তা থেকে পানির মতো তরল পদার্থ বের হতে পারে।

চুলকানির কারণে ক্ষত হতে পারে এবং সে ক্ষেত্রে অন্য সংক্রমণ হওয়ার ঝুঁকি দেখা দেয়।

লেখক: চর্ম ও যৌনরোগ বিশেষজ্ঞ

বিজ্ঞাপন
জীবনযাপন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন