১০৩ বছর বয়সে দৌড়ে হকিন্সের স্বর্ণপদক জয়

বিজ্ঞাপন
default-image

দুই বছর আগে ১০০ মিটার দৌড়ে সোনা জিতে বিশ্ব রেকর্ড করেন। এবার সেই রেকর্ড ভাঙতে পারেননি, তবে নিজের ‘হারিকেন’ ডাকনামের সার্থকতা ঠিকই ধরে রেখেছেন জুলিয়া হকিন্স। ১০৩ বছর বয়সে এসেও দৌড়ে জিতেছেন স্বর্ণপদক!

মার্কিন সংবাদমাধ্যম এবিসি নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ-পশ্চিমাংশের অঙ্গরাজ্য নিউ মেক্সিকোতে অনুষ্ঠিত হয়েছে চলতি বছরের সিনিয়র গেমস। এই প্রতিযোগিতার শতবর্ষী নারী বিভাগে দৌড়ে স্বর্ণপদক জিতেছেন হকিন্স। তাও আবার একটি নয়, দুটি ইভেন্টে অংশ নিয়ে দুটিতেই সোনা জিতেছেন তিনি! ১০০ মিটারের পাশাপাশি ৫০ মিটার দৌড়েও বিজয়ীর মুকুট উঠেছে হকিন্সের মাথায়।

লুইজিয়ানা প্রদেশের বাসিন্দা হকিন্স। রেকর্ড ভাঙতে না পারায় কিছুটা মনঃক্ষুণ্নই তিনি।

হকিন্সের দৌড়ে আসার নেপথ্যের কাহিনিটাও কিন্তু বেশ চমকপ্রদ। শরীরটা সায় না দেওয়ায় পাহাড়ে বাইক চালানোটা বেশ চ্যালেঞ্জিং হয়ে উঠেছিল। তাই নাম লিখিয়েছেন দৌড়ে! সিনিয়র গেমসের আয়োজক প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল সিনিয়র গেমস অ্যাসোসিয়েশনের তথ্য অনুযায়ী, এ প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়া সবচেয়ে বেশি বয়সী নারী হকিন্স।

হকিন্স বলেন, ‘সামনে এগিয়ে যাওয়াই আমার লক্ষ্য। খাদ্যাভ্যাস, বিশেষ করে পুষ্টিকর খাবার খাওয়া ও ওজন নিয়ন্ত্রণের ব্যাপারে আমি সব সময়ই সচেতন ছিলাম।’

এত বছর ধরে স্ত্রীর জেতা স্বর্ণপদকগুলো সংরক্ষণ করার দায়িত্ব নিজের কাঁধে তুলে নিয়েছেন হকিন্সের স্বামী। হকিন্স নিজেই জানালেন সে কথা, ‘বেশ অনেকগুলো পদকই জিতেছি। আমি এত যত্ন নিই না ওগুলোর, এখানে–সেখানে ফেলে রাখি। তবে আমার স্বামী সেগুলো সংরক্ষণের জন্য একটা বাক্স বানিয়ে এনেছে।’

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন