আতঙ্কিত সময়

বিজ্ঞাপন

জর্জ ফ্লয়েডের করুণ মৃত্যু

আমাকে দিবানিশি আতঙ্কিত করছে
ভাবছি আবারও কি ওরা আসছে
তারা, যারা বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে মানুষকে মেরেছিল করুণভাবে,
তারা, যারা জালিয়ানওয়ালাবাগ, অমৃতসরে
সামান্য অজুহাতে হত্যাকাণ্ড চালিয়েছিল,
তারা, যারা হলোকাস্ট নাম দিয়ে
প্রায় ছয় মিলিয়ন ইহুদিকে হত্যা করেছিল,
হিটলার যখন হিমলারকে বলেছিল
ইহুদিদের কেবল মরলেই চলবে না
তাদেরকে ব্যথার মধ্য দিয়ে,
কষ্ট সহ্য করেই মরতে হবে,
তারা, যারা বোমা মেরে হিরোশিমা-নাগাশাকির
নিরস্ত্র দুই লক্ষাধিক মানুষকে মেরেছিল।
তারা, যারা আমার দেশের নিরীহ-নিরস্ত্র
মানুষের ওপর রাতের আঁধারে
হামলে পড়ে ধ্বংসলীলা চালিয়েছিল
নয় মাসব্যাপী যুদ্ধে ৩০ লক্ষ নরনারীকে হত্যা ছাড়াও
হেন আকাম নাই যা করে নাই, তারা।
তারা, কম্পুচিয়ার খেমাররুজেরা
কিছুদিনের ব্যবধানে দেশের মোট জনসংখ্যার
প্রায় ২৫ ভাগ মানুষকে হত্যা করেছিল ।
তারা, পূর্ব আফ্রিকার এক দেশে
যারা মাত্র ১০০ দিনের ব্যবধানে
প্রায় ১ মিলিয়ন মানুষকে কচুকাটা করেছিল
ভাই ভাইকে বা প্রতিবেশী প্রতিবেশীকেও যারা
অবলীলায় খুন করেছে, বিদ্যালয়-ধর্মালয়ও
যাদের কাছ থেকে রক্ষা পায়নি, তারা।
কেন এমন আতঙ্ক? কেন স্বস্তি নেই কোথাও?
কার অপরাধে এমন আতঙ্কিত সময়
দিন-মাস কাটছে ।
আর কত দিন?
মুক্তি কি মিলবে?
আদৌ !

jamilchoudhury@yahoo.com

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন