ছবি: লেখক
ছবি: লেখক

১৮ সেপ্টেম্বর শুক্রবার ‘ওয়ার্ল্ড ক্লিনআপ ডে’ উপলক্ষে বাহরাইন সরকার কর্তৃক নিবন্ধিত সংগঠন বাংলাদেশ সোসাইটি নানা আয়োজন ও কর্মসূচির মাধ্যমে দিবসটি পালন করে।

ওই দিন রাতে এ উপলক্ষেরাজধানী মানামার বিশেষ বিশেষ জায়গায় ময়লা-আবর্জনা অপসারণ, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ও করোনাভাইরাস-বিষয়ক সচেতনতামূলক মাইকিং ও লিফলেট বিতরণ এবং জীবাণুনাশক স্প্রে করা হয়। এ কর্মসূচিতে বিশেষ সহযোগিতা করেন জার্মান নাগরিক ক্লিন আপ বাহরাইনের উদ্যোক্তা কাই মিইথিং। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সোসাইটির সভাপতি ফুয়াদ তাহির শান্তুনু, সাধারণ সম্পাদক আসিফ আহমেদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল বাশার, অর্থ সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম নয়ন, সমাজকল্যাণ সম্পাদক মোহন মিয়া মোমেন, মেম্বার সেক্রেটারি আলতাফ মাহমুদ আকবরসহ আরও অনেকে ।

বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশ সোসাইটির সভাপতি ফুয়াদ তাহির শান্তুনু প্রথম আলোকে বলেন, ‘বাহরাইন যদিও অনেক পরিচ্ছন্ন একটি দেশ, তার পরও অনেকে অসতর্কভাবে ব্যবহার করা মাস্ক, হ্যান্ড গ্লাভস প্রভৃতি যত্রতত্র ফেলে দেন। এতে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি থেকে যায়, তা ছাড়া এই বৈশ্বিক মহামারি করোনার সময় আমাদের এ উদ্যোগ বাহরাইনে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করবে বলে আমার বিশ্বাস।’

default-image

রাজধানী মানামার দুটি ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় বর্জ্য অপসারণ ও প্রচারণায় দুটি ভাগে বিভক্ত হয়ে ৪০ জনেরও বেশি স্বেচ্ছাসেবকের একটি দল এই কার্যক্রমে অংশ নেয়। পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রমের নেতৃত্ব দেন সোসাইটির অপারেশন ইনচার্জ জহিরুল ইসলাম রাজিব এবং প্রচার সম্পাদক সবুজ মিলন।

বিশেষ সহযোগিতায় ছিল বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রতিনিধি ও বাহরাইন কমিউনিটি পুলিশ।

স্বেচ্ছাসেবকেরা করোনা প্রতিরোধে নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা মাস্ক, ফেস শিল্ড, গ্লাভস, হ্যান্ড স্যানিটাইজার প্রভৃতির মাধ্যমে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে কার্যক্রম পরিচালনা করেন।

মন্তব্য পড়ুন 0