default-image

ইউরোপীয় মানবাধিকার আদালত জেনেভায় ভিক্ষাবৃত্তির জন্য এক নিরক্ষর রোমানিয়ান নারীকে জরিমানা দেওয়ার জন্য সুইজারল্যান্ডকে নির্দেশ দিয়েছেন।
রোমানিয়ার ওই নাগরিককে ২০১৪ সালের জানুয়ারিতে জেনেভার রাস্তায় ভিক্ষাবৃত্তির জন্য ৫০০ সুইস ফ্র্যাঁ (প্রায় ৪৬ হাজার বাংলাদেশি) জরিমানা করা হয়েছিল। ওই নারীর কোনো কাজ ছিল না এবং সামাজিক সহায়তাও পাচ্ছিলেন না। জরিমানা না দেওয়ার কারণে পাঁচ দিনের জন্য তাঁকে প্রি-ট্রায়াল আটকে রাখা হয়েছিল।

তবে স্টারসবার্গভিত্তিক ইউরোপীয় মানবাধিকার আদালত বলেছেন, সেই নারী কোনো সংগঠিত অপরাধ করেননি এবং তাঁর মানবিক তথা পারিবারিক অধিকার ক্ষুণ্ন করা হয়েছে। আদেশে আরও বলা হয়েছে, জরিমানা অনুমোদন আইন লঙ্ঘনের সঙ্গে আনুপাতিক নয়।

ইউরোপীয় আদালত বলেছেন, আবেদনকারীর মানবিক মর্যাদার সহজাত অধিকার আছে এবং ভিক্ষাবৃত্তি করে তাঁর প্রয়োজনীয়তার প্রতিকার করার চেষ্টা করার অধিকারও আছে। ব্যক্তিগত ও পারিবারিক জীবনের প্রতি শ্রদ্ধার অধিকার রক্ষায় মানবাধিকার–সম্পর্কিত ইউরোপীয় কনভেনশন ধারা ৮ সুইজারল্যান্ড ভঙ্গ করেছে।

বিজ্ঞাপন
default-image

আদালত সুইজারল্যান্ডকে ক্ষতির জন্য আবেদনকারী ভিক্ষুক রোমানিয়ান ওই নারীকে ৯২২ ইউরো (৯৫ হাজার টাকা) প্রদানের নির্দেশ দিয়েছেন।
সুইজারল্যান্ডে ভিক্ষাবৃত্তি নিষিদ্ধ এবং আইনবিরোধী। ইউরোপীয় অনুন্নত দেশ রোমানিয়ার অনেক যাযাবর রোমা সুইজারল্যান্ডসহ ইউরোপের বিভিন্ন ধনী দেশে এই ভিক্ষাবৃত্তির সঙ্গে জড়িত। ভিক্ষাবৃত্তি বন্ধ করতে সুইস ক্যান্টনগুলো ক্রমে শক্ত ও কঠোর হয়ে উঠেছে।

দূর পরবাস থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন