বিজ্ঞাপন

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা শুধু রোজিনা ইসলামের গলা চেপে ধরেননি, ন্যক্কারজনক এ ঘটনার মাধ্যমে বাংলাদেশের গণমাধ্যমের কণ্ঠ চেপে ধরা হয়েছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন দুর্নীতির রিপোর্ট প্রকাশ করায় রোজিনাকে নির্যাতন করে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাংলাদেশে চোরেরা এক হয়েছে। তারা বাংলাদেশে গণমাধ্যমের যেটুকু স্বাধীনতা আছে, সেটুকুও কেড়ে নিতে চায়।

বক্তারা অবিলম্বে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবি জানান। বাংলাদেশের সব সাংবাদিক–গণমাধ্যমকর্মীর নিরাপত্তা জোরদার এবং বিভিন্ন সময়ে সাংবাদিকদের নির্যাতনকারীদের বিচারের মুখোমুখি করার দাবি তুলে বলেন, রোজিনা ইসলামের মুক্তির মাধ্যমে সাংবাদিক নির্যাতনের শেষ টানতে হবে।

দূর পরবাস থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন