default-image

ওরা উদ্বাস্তু
কেউ এসেছে কেনিয়া, কেউ এসেছে কঙ্গো, সিরিয়া, সুদান
ইথিওপিয়া, উগান্ডা, বাংলাদেশ থেকে
নাম তার রিফিউজি, আদর করে কেউ ডাকে তাকে শরণার্থী
ওরা গলিত লাভার মতো ছড়িয়ে–ছিটিয়ে আছে দেশে দেশে,
মারাঠি কায়দায় ওরা দেশান্তরী হয়
সামরিক জান্তা দেখায় বায়স্কোপ, নীলাম্বরি ছয় আনা
জল মিসাইলের তাড়া খেয়ে কেউ পড়ে নাফ নদী


কেউ ছাড়ে বসতবাড়ি
শ্যামল সীমান্ত দেশে ওরা উতলা হয় ক্লাইভের রাজত্বে
রাখাইন রাজ্যের মেয়েটিও এখন চৈনিক তালে নাচে
প্রাচীন ঢঙে ওরা কথা বলে, কবিরাজই ওরা এখনো বেশি চেনে
ডলার, পাউন্ড, টাকা কিংবা কায়েট সমান মূল্য তাদের কাছে
ওরা বালা, খারু, থামি, জুম কিংবা পাহাড় ভালোবাসে,
কত দেশ থেকে শাহি পয়গাম আসে সারেঙ্গি বাজিয়ে
ওরা রোহিঙ্গা, মগের মুল্লুক থেকে বিতাড়িত,
উপনিবেশ ক্যামেরা এখন বদ্বীপে

ওরা প্রান্তজন
ওরা পাহাড়ের ছায়ায় প্রণয় করে তিতুমীরের তেজ পেলে
ওরা টেকনাফ থেকে ভাসানচর মহাসড়ক বানায়
ওটাই এখন নিখুঁত রাখাইন নকশা।
তেজি তেজারত এখন মিয়ানমারে
ব্যাটালিয়নের তাড়া খেয়ে গণতন্ত্র এখন ব্যারিকেডে
সোমালিয়া, আফগান, সিরিয়া, প্যালেস্টাইন
প্ল্যাকার্ডে এখন তেজ নেই, হিজাব ব্যানারে ঝিলিক নেই
ওদের একটাই পরিচয় ওরা অভিবাসী
নাফ নদী ভাঙে, তীরে ভাসে নীড়
রিজিকের সন্ধানে ওরা দরিয়া পাড়ি দেয়
কেউ বেলারুশ গিয়ে বেলে নৃত্য করে,

এশিয়া, আফ্রিকা, ইউরোপ
সারা বিশ্বে আজ প্রতীকী ইগল
নষ্ট নগর ছাড়া সীমিত রোমাঞ্চে
জেনেভা ক্যাম্পের বাসিন্দাদের
কোনো অযুত, নিযুত চাওয়া নেই,
পেন্টাগন, বেইজিং, ক্রেমলিন খাইবার গিরিপথ
কিংবা ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ওরা এখনো পাক ভূমি যেতে চায়
ওরা রিফিউজি, ওরা রোহিঙ্গা, ওরা প্যালেস্টাইন শরণার্থী।

*লেখক: শরীফুল আলম, হাডসন, নিউইয়র্ক, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

বিজ্ঞাপন
দূর পরবাস থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন