default-image

সিঙ্গাপুরের বাংলাদেশ হাইকমিশন যথাযথ মর্যাদা ও বিনম্র শ্রদ্ধায় ভাষাশহীদদের স্মরণ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন করেছে।

মহান এই দিবসের কর্মসূচির অংশ হিসেবে ২১ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সময় সকালে দেশটিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মো. মোস্তাফিজুর রহমান হাইকমিশন প্রাঙ্গণে স্থাপিত অস্থায়ী শহীদ মিনারে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন।

এ সময় দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও দেশটিতে বসবাসরত বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রবাসী বাংলাদেশিরা উপস্থিত ছিলেন। এর আগে হাইকমিশনার বাংলাদেশি কমিউনিটি ও বিভিন্ন বাংলাদেশি সংগঠনের নেতার উপস্থিতিতে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত করেন।

অনুষ্ঠানমালার পরবর্তী পর্বে হাইকমিশন মিলনায়তনে দিবসটির গুরুত্ব ও তাৎপর্য তুলে ধরে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। হাইকমিশনার মো. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস সারা বিশ্বে ভাষা বৈচিত্র্য ও নৃতাত্ত্বিক পরিচিতি তুলে ধরার একটি উপলক্ষে পরিণত হয়েছে। ভাষা আন্দোলনের ঐতিহাসিক গুরুত্ব তুলে ধরে তিনি আরও বলেন, ১৯৫২ ভাষা আন্দোলন ছিল বাংলাদেশের স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রথম সোপান।

default-image

অনুষ্ঠানে দিবসটি উপলক্ষে প্রদত্ত রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর বাণী পড়া হয়। এ ছাড়া ভাষাশহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন এবং ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের রুহের মাগফিরাত কামনা ও দেশের অব্যাহত শান্তি, সমৃদ্ধি কামনা করে মোনাজাত করা হয়। বিজ্ঞপ্তি

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন