আইনি ক্ষেত্রে করোনার প্রভাব বিষয়ে ইউএপির ভার্চ্যুয়াল সম্মেলন

ইউনেসকো মদনজিৎ সিং সাউথ এশিয়ান ইনস্টিটিউট অব অ্যাডভান্সড লিগ্যাল অ্যান্ড হিউম্যান রাইটস স্টাডিজ (ইউএমএসএআইএলএস) ও ইউনিভার্সিটি অব এশিয়া প্যাসিফিকের (ইউএপি) আইন ও মানবাধিকার বিভাগের উদ্যোগে আইনবিষয়ক তিন দিনের ভার্চ্যুয়াল সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১৭ থেকে ১৯ জুন অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক সম্মেলনটির প্রতিপাদ্য ছিল ‘আইনি ক্ষেত্রে করোনা মহামারির প্রভাব’।

সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন ভারতের সুপ্রিম কোর্টের সাবেক বিচারপতি এইচ এল গোখলে, বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন জাপানের কানসাই বিশ্ববিদ্যায়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক অ্যাসোনো এবং বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের সাবেক বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী। এ সময় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন ইউনিভার্সিটি অব এশিয়া প্যাসিফিকের ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্য কাইয়ুম রেজা চৌধুরী, কোষাধ্যক্ষ এয়ার কমোডর (অব.) ইশফাক ইলাহী চৌধুরী এবং আইন ও মানবাধিকার বিভাগের প্রধান চৌধুরী ইশরাক আহমেদ সিদ্দিকী।

সম্মেলনে প্রতিদিন তিনটি করে মোট নয়টি অধিবেশন ছিল। অধিবেশনগুলোতে ৩৫টি গবেষণাপত্র উপস্থাপন করা হয়। গবেষণাপত্রগুলো করোনা মহামারি থেকে উদ্ভূত আইনি গতিশীলতা বিকশিত হওয়ার জন্য নানাবিধ জ্ঞান ও অন্তর্দৃষ্টির সমন্বয় সাধন করতে সক্ষম হয়েছে। সম্মেলনের প্রথম দিনে করোনার সময় আইন পেশায় করোনাভাইরাসের প্রভাব, মানবাধিকার লঙ্ঘন এবং সীমান্তে প্রবেশের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা এবং মহামারিতে নারী ও শিশু প্রতি সহিংসতা নিয়ে আলোচনা করা হয়। এ পর্বে মূল আলোচক ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক সুমাইয়া খায়ের, অধ্যাপক ফারমিন ইসলাম, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ফস্টিনা পেরেইরা, শাহরিয়ার সাদাত এবং বাংলাদেশ সরকারের আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপসচিব এ কে এম ইমদাদুল হক।

এ ছাড়া মহামারির সময় জনস্বার্থের পাল্টা প্রতিরোধের বিষয়গুলো যেমন দক্ষিণ এশিয়ার শ্রম পরিস্থিতি এবং আঞ্চলিক খাদ্য সুরক্ষার ওপর করোনাভাইরাসের প্রভাব, মহামারিকালীন শিক্ষাগত সীমাবদ্ধতা, কোভিড ১৯-এর পটভূমিতে আন্তর্জাতিক আইন ও মহামারি আইন সম্পর্কে মূল্যায়ন বিষয়গুলো আলোচনায় উঠে এসেছে সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনে। এ আলোচনায় অংশ নেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক রিদওয়ানুল হক, অধ্যাপক জামিলা এ চৌধুরী, সুপ্রিম কোর্টের সাবেক রেজিস্ট্রার জেনারেল ইখতেদার আহমেদ, বিশিষ্ট আইনজীবী সারা হোসেন এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক কাজী মাহফুজুল হক।

সম্মেলনের তৃতীয় ও শেষ দিনে কোভিড-১৯-এর প্রভাবে পরিবেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন আলোচনায় তুলে ধরা হয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান গবেষণাপত্র উপস্থাপন করেন। এ সময় বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের বিশিষ্ট আইনজীবী শাহদীন মালিক, জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান, বাংলাদেশ পরিবেশ আইনজীবী সমিতির (বেলা) নির্বাহী পরিচালক সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান বক্তব্য দেন।

ভার্চ্যুয়াল সম্মেলনের সমাপনী অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের জ্যেষ্ঠ বিচারপতি ড. কামাল হোসেন। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন ইউএপির ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ও ইউএমএসএআইএলএসের ভাইস চেয়ারম্যান সি এম শফি সামি, মদনজিৎ সিং ফাউন্ডেশনের প্রিন্সিপাল ট্রাস্টি ফ্রান্স মারকেট, বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের সাবেক বিচারপতি এম এ মতিন, সাউথ এশিয়া ফাউন্ডেশনের শ্রীলঙ্কা অংশের চেয়ারম্যান অরবিন্দ রদ্রিগো এবং ইউএপির ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য মো. সুলতান মাহমুদ।