দাস

মাটি ও পাথর বেয়ে ধাপে ধাপে নীরবে উঠছি, আমার আস্তিন ধরে নিচে থেকে টানছে বানেছা, যেন আমি তার জন্য ছিলাম দেওয়ানা, যেন আমি তারই জন্য মাজারে-মাজারে-ঘোরা বেশরা ফকির।

আমি চাই বা না-চাই, তবু ধেয়ে আসে বিন্নাঝোপ, আঁকড়ে ধরতে আসে কাঞ্চন পাহাড়। আমি কি জানতাম আগে, রাত্রি গভীর হলে আমার দক্ষিণ হাতে কেউ এসে দিয়ে যাবে নিষিদ্ধ গন্দম।

ডাকছে হিজলা গাঁও, বিজন বিল, রাতের হাওর, তবু প্রতিদিন কোনো এক কাঞ্চনপাত্রে আমাকে দেখে যেতে হবে এই পথশ্রান্ত চুরমার মুখ।

বিজ্ঞাপন
কবিতা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন