বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গতকাল শুক্রবার রাত ৯টায় এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে রওশন এরশাদ ব্যাংকক পৌঁছান। সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার দিকে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সটি ঢাকার হজরত শাহজালাল (রহ.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ব্যাংককের উদ্দেশে রওনা হয়। রওশন এরশাদের সঙ্গে গেছেন ছেলে রাহগির আল মাহি সাদ এরশাদ, ছেলের বউ মাহিমা এরশাদ ও তাঁদের একজন ব্যক্তিগত কর্মচারী। কিন্তু তাঁদের বহনকারী বিমান আকাশে থাকতেই সামাজিক যোগাযোগেরমাধ্যম ফেসবুকে গুজব ছড়ায় যে রওশন এরশাদ মারা গেছেন।

পারিবারিক সূত্র জানায়, ৭৮ বছর বয়সী রওশন এরশাদ বার্ধক্যজনিত নানা জটিলতায় ভুগছেন। তিনি আড়াই মাসের বেশি সময় গুরুতর অসুস্থ হয়ে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন ছিলেন। ১৪ আগস্ট রওশন এরশাদকে সিএমএইচে ভর্তি করা হয়। শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে ২০ অক্টোবর থেকে তাঁকে আইসিইউতে রাখা হয়। সর্বশেষ তাঁর ফুসফুসে সংক্রমণ দেখা দেওয়ায় অক্সিজেনের স্তর ওঠানামা করছিল।

রওশন এরশাদের সুস্থতা কামনা করে জাপার চেয়ারম্যান জি এম কাদের দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন। সাদ এরশাদও মায়ের সুস্থতার জন্য সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন।

সাদ এরশাদ রংপুর-৩ আসনে জাপার সাংসদ এবং দলের যুগ্ম মহাসচিব। আর রওশন এরশাদ ময়মনসিংহ-৪ আসনের সাংসদ।

রাজনীতি থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন